×
South Asian Languages:
ঘটনা প্রসঙ্গ, 21 ডিসেম্বর 2012
ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী ডঃ মনমোহন সিংহ একটি নতুন রাজনৈতিক পরিভাষা বিশ্বের রাজনীতিতে অন্তর্ভুক্ত করেছেন, এটা “ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকা”. এই পরিভাষা তিনি ব্যবহার করেছেন দিল্লী শহরে হওয়া ভারত- আসিয়ান শীর্ষ বৈঠকে. এই পরিভাষা ভারত- প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকার ধারণাকে প্রসারিত করে ও বিশেষ করে ভারতের এই এলাকা নিয়ে নিজেদের আগ্রহ বৃদ্ধির কথাই বলে. এই শীর্ষ বৈঠক বহু কারণেই ছিল খুবই সংজ্ঞাবহ.
যৌথ রুশ-ভারত “ব্রামোস” প্রতিষ্ঠান রাশিয়ার “রসআবারোনএক্সপোর্ত” সংগঠনের সাথে ভারতের বিমানবাহিনীতে ব্যবহৃত “সু-৩০এম.কা.ই” ফাইটার বিমানগুলির আধুনিকীকরণের জন্য চুক্তি স্বাক্ষর করেছে. কোম্পানি ফাইটার বিমানগুলিকে সুপারসোনিক “ব্রামোস” রকেটে সজ্জিত করতে চায়, রাশিয়ার “রিয়া নোভস্তি” সংবাদ এজেন্সিকে জানিয়েছেন ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক উত্স.
পারমাণবিক বিদ্যুত্শক্তির ক্ষেত্রে রুশ-ভারত সহযোগিতার মুখ্য প্রকল্প – “কুদানকুলাম” পারমাণবিক বিদ্যুত্ কেন্দ্রের প্রথম ব্লকের নির্মাণ-কাজ শেষ হয়েছে. এ সম্বন্ধে নয়া-দিল্লিতে বলেছেন ভারতে রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত আলেক্সান্দর কাদাকিন ২৪শে ডিসেম্বরের জন্য পরিকল্পিত রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিনের ভারত সফরের প্রতি উত্সর্গীত এক সাংবাদিক সম্মেলনে. রাষ্ট্রদূতের কথায়, বিদ্যুত্ কেন্দ্রটি ব্যবহারের জন্য প্রকৃতপক্ষে প্রস্তুত.
সিরিয়ার কর্তৃপক্ষ দেশের উত্তরাঞ্চলে বিরোধী শক্তির স্থিতির উপর আবার ব্যালিস্টিক “স্কাড” রকেটের আঘাত হেনেছে. এ সম্বন্ধে শুক্রবার জানিয়েছে মার্কিনী “এ.বি.সি নিউজ” বেতারকেন্দ্র মার্কিনী প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের ওয়াকিবহাল উত্সকে উদ্ধৃত করে. প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, বিগত এক দিনে রকেট ক্ষেপণ করা হয়েছিল দামাস্কাসের উপকণ্ঠ থেকে খালেব (আলেপ্পো) শহরের কাছে লক্ষ্য স্থলের উপর.
আমেরিকার লোকরা সিরিয়াতে প্ররোচনা দেওয়ার জন্য রাসায়নিক অস্ত্র প্রয়োগের চেষ্টা করছে. এই বিষয়ে নিজের ব্লগে লিখেছেন ঐস্লামিক প্রজাতন্ত্র ইরানের মস্কো শহরের রাষ্ট্রদূত মাখমুদরেজা সাদঝাদি. ব্যাখ্যার জন্য জনাব সাদঝাদির কাছে রেডিও রাশিয়ার সাংবাদিক প্রতিনিধি ইভান জাখারভ পৌঁছেছিলেন. কথা হয়েছে ফারসী ভাষায়.
হাজার হাজার প্যালেস্টাইনী শরণার্থী দামাস্কাসের উপকণ্ঠে ইয়ারমুক শিবিরে ফিরে আসতে শুরু করেছে জঙ্গী ও সিরিয়ার কর্তৃপক্ষের মাঝে সমঝোতার পরে. ইয়ারমুক শিবিরকে “নিরপেক্ষ এলাকা” বলে ঘোষণা করা হয়েছে, আর সেখানে নিরাপত্তা বজায় রাখবে স্থানীয় প্যালেস্টাইনী প্রশাসন.
রাষ্ট্রসঙ্ঘের সাধারণ সভা রাশিয়ার উদ্যোগে নাত্সীবাদের বীরত্বব্যঞ্জনার বিরুদ্ধে সিদ্ধান্ত অনুমোদন করেছে; সিদ্ধান্তের পক্ষে ভোট দিয়েছে ১৩০টি দেশ, বিরুদ্ধে ভোট দিয়েছে তিনটি দেশ – মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা এবং পালাউ. আরও ৫৪টি দেশ ভোটদান থেকে বিরত ছিল, জানিয়েছে “রিয়া নোভস্তি” সংবাদ এজেন্সি.
ডিসেম্বর 2012
ঘটনার সূচী
ডিসেম্বর 2012