×
South Asian Languages:
নৌবাহিনী, সেপ্টেম্বর 2012
বিমানবাহী জাহাজ “বিক্রমাদিত্য” (প্রাক্তন “অ্যাডমিরাল গর্শকভ”), যা ভারতের নৌবাহিনীর বরাতে রাশিয়াতে আধুনিকীকরণ করা হয়েছে, তার প্রধান পরীক্ষা গুলি সাফল্যের সঙ্গেই শেষ হয়েছে, এই কথা ঘোষণা করেছেন রাশিয়ার উপ প্রধানমন্ত্রী দিমিত্রি রগোজিন.
পাকিস্তান আবার ৭০০ কিমি. দূরত্ব পর্যন্ত পারমানবিক ওয়ারহেড বহন করতে সক্ষম, এরকম রকেট পরীক্ষা করেছে. পাঞ্জাব প্রদেশের এক সামরিক ঘাঁটি থেকে রকেটটি নিক্ষেপ করা হয়. পাক প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের বিবৃতি অনুযায়ী নিক্ষেপ সফল হয়েছে. সবিষদে পড়ুন আমাদের পর্যবেক্ষক গেওর্গি ভানেতসোভের পর্যালোচনা. ডানাশুদ্ধ হাতফ-৭ বা বাবর নামক রকেট পাকিস্তানের সর্বাধুনিক প্রযুক্তি.
সেন্ট-পিটার্সবার্গের অবসরপ্রাপ্ত সামরিক নৌবাহিনী কর্মীদের ক্লাব বিশ্ববিখ্যাত সমরজাহাজ অরোরাকে আবার নতুন করে চালু করার প্রস্তাব দিয়েছে. তাদের মতে জাহাজে নতুন মোটর বসিয়ে ওটা রাষ্ট্রপতির জাহাজে পরিণত করা যেতে পারে, যাতে ভাবী প্রজন্ম স্বচক্ষে তাকে অবলোকন করতে পারে. যুদ্ধজাহাজ অরোরাকে জলে ভাসানো হয়েছিল ১৯০০ সালে. জাহাজটি বেশ কয়েকটি যুদ্ধে অংশ নিয়েছিল, বহুবার দূরে পাড়ি দিয়েছে.
সম্মেলন চলাকালীণ এক ভুল বোঝাবুঝি সৃষ্টি হয়েছিল, অ্যাডমিরাল জন নেফম্যান সামরিক বাহিনীর প্রাক্তন দের প্রতি সম্মান প্রদর্শনের উদ্দেশ্যে এক দেশ প্রেমের বক্তৃতা দেওয়ার সময়ে দাঁড়িয়ে ছিলেন রুশ নৌবাহিনীর জাহাজের ছবি দেওয়া স্ক্রীণের সামনে, খবর দিয়েছে “নেভি টাইমস” সংবাদপত্র. এই জাহাজ গুলি যে, রুশী জাহাজই ছিল, তার সম্পর্কে প্রামাণ্য দাখিল করেছেন সামরিক নৌবাহিনী নিয়ে বইয়ের লেখক নরমান পলমার.
রাশিয়ার সামরিক নৌবাহিনীতে জলের গভীরে চলা চালক বিহীণ ডুবোজাহাজ যোগ হতে চলেছে. এই বিষয়ে ঘোষণা করেছেন ঐক্যবদ্ধ জাহাজ নির্মাণ কর্পোরেশনের রাষ্ট্রীয় প্রতিরক্ষা ফরমাশ বিভাগের প্রধান আনাতোলি শ্লেমভ. তাঁর কথামতো, স্বয়ংক্রিয় ও মানুষের বাসযোগ্য নয়, এমন জলের নীচে চলতে পারা যানের সৃষ্টি রাশিয়াতে শুরু হয়েছিল গত শতকের আশির দশকের শেষ থেকেই.
গণ প্রজাতন্ত্রী চিন ও ভারতবর্ষ চুক্তি করেছে যে, তারা আবার যৌথ ভাবে সামরিক প্রশিক্ষণ করবে ও দুই দেশের সামুদ্রিক নৌবাহিনীর মধ্যে সহযোগিতা বৃদ্ধি করবে. এই বিষয়ে দিল্লী শহরে চিনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী লিয়াং গুয়াঙ্গলিয়ে ও ভারতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী আরাক্কাপারামবিল কুরিয়েন অ্যান্টনির মধ্যে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকের পরে প্রকাশিত এক খবরে প্রকাশ করা হয়েছে.
বিগত সপ্তাহ দেখিয়ে দিয়েছে যে, সিরিয়া সঙ্কট থেকে বের হওয়ার পথ নিয়ে নিজেদের অবস্থান ব্যক্ত করার বিষয়ে যেমন রাষ্ট্রসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদের চেষ্টা, তেমনই জোট নিরপেক্ষ আন্দোলন সংস্থার শীর্ষ সম্মেলনের প্রচেষ্টাও আশা ব্যঞ্জক কিছু দেওয়ার চেয়ে বেশী করেই হতাশার উদ্রেক করেছে.
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
সেপ্টেম্বর 2012
ঘটনার সূচী
সেপ্টেম্বর 2012
1
3
4
7
8
9
10
11
12
14
15
16
17
19
20
21
22
23
24
26
27
28
29
30