×
South Asian Languages:
অর্থনৈতিক এলাকা, সেপ্টেম্বর 2012
চিন আফগানিস্তানে নিজেদের প্রভাব বৃদ্ধির জন্য খুবই সংজ্ঞাবহ এক কাজ করেছে. বিগত সপ্তাহান্তের দিন গুলিতে কাবুল শহরে, এক আগে থেকে না জানানো সফরে এসেছিলেন চিনের কমিউনিস্ট পার্টির কেন্দ্রীয় পরিষদের নেতা চ্ঝোউ ইউনকান. এটি ১৯৬৬ সালের পর থেকে চিনের এত উচ্চ পর্যায়ের কোনও নেতৃস্থানীয় ব্যক্তির আফগানিস্তানে প্রথম সফর.
রাশিয়ায় চালু হতে যাচ্ছে রুশ-ভারত বাণিজ্য ভবনের শাখা. গত এপ্রিল মাসে যা মুম্বাইয়ে উদ্বোধন করা হয়. সর্বভারতীয় শিল্প এ্যাসোসিয়েশনের প্রধান ও রুশ-ভারত বাণিজ্য ভবন প্রতিষ্ঠার অন্যতম উদ্দ্যোক্তা বিজায় কালান্তিরি শুক্রবার এ তথ্য জানান. বাণিজ্য ভবনের শাখা যা মস্কো ও সেন্ট পিটার্সবার্গ শহরে চালু হবে. কালান্তিরি আরও জানান, রাশিয়ার নেতাদের সাথে ভারতীয় প্রতিনিধি দলের সাক্ষাতে এ প্রশ্ন নিয়ে আলোচনা করা হবে.
এই বিষয়ে বৃহস্পতিবারে পনেরোতম চিন – ইউরোপীয় সঙ্ঘ শীর্ষ সম্মেলনে চিনের রাষ্ট্রীয় সভার প্রধান ভেন ঝিয়াবাও ব্রাসেলস শহরে ঘোষণা করেছেন.
আন্তর্জাতিক পরমাণু সংস্থা (আইএইএ)এক পূর্বাভাসে জানিয়েছে যে, ২০৩০ সাল নাগাদ বিশ্বে পরমাণু উত্পাদন অন্তত ২৫ ভাগ বৃদ্ধি পাবে. সেই সাথে উত্পাদিত পরমাণুর শ্রেনী বিভাগ সর্বোচ্চ ১০০ পর্যন্ত হতে পারে. পরমাণু উত্পাদনে বিশেষজ্ঞদের এই পূর্বাভাসে মূলত দুটি চিত্রপট প্রধান ভূমিকা পালন করছে. পরমাণু শক্তির পক্ষে সব যুক্তি বিবেচনা করলে এর বিরোধিতা করা অনেকটা জটিল হয়ে দাঁড়ায়.
প্রাক্তন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের তরফ থেকে উত্তর কোরিয়া সংক্রান্ত বিশেষ প্রতিনিধি স্টিভেন বসুয়ার্ট বলেছেন যে, উত্তর কোরিয়াকে পরমাণু অস্ত্র মুক্ত করা সম্ভব নয়, পরীক্ষা করেও লাভ নেই, খবর দিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার টিভি চ্যানেল কেবিসি মঙ্গলবারে.
দক্ষিণ কোরিয়ার দুই কোরিয়া ঐক্যবদ্ধ করার মন্ত্রণালয়ে ঠিক হয়েছে যে, ব্যক্তিগত মালিকানার কোম্পানী গুলিকে, যারা উত্তর কোরিয়াতে ব্যবসা করছে, তাদের আর্থিক অনুদান দেওয়া হবে. এই খবর দিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার টিভি চ্যানেল কেবিসি.
রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রকের বিশেষ দূত আন্তন ভাসিলিয়েভ বলেছেন, যে মস্কোর মতে উত্তর মেরুতে পরিস্থিতি সদর্থক ও স্থিতিশীল. তার ভাষায়, খেলার আইনকানুন বদল না করলে ঐ এলাকায় সংঘাত তীব্রতর হওয়ার কোনো আশংকা নেই. এই উক্তি তিনি করেছেন রাশিয়ার উত্তরাঞ্চলে আরখাঙ্গেলস্ক শহরে ‘উত্তর মেরুর উন্নয়ন ও অধ্যয়ন’ নামক সম্মেলনে.
বিগত ৪ বছরের অর্থনৈতিক মন্দা যা ইউরোপ সামান্য কিছুটা হলেও অনুভব করতে পেরেছে, বিশেষকরে শুরু হওয়া নতুন অর্থনৈতিক মন্দা. চলতি সপ্তাহে ইউরোপীয় তহবিলের ভাগ্য আবার ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে যা নিজেদের অন্যতম অর্থনৈতিক সহায়তা প্রদানকারী দেশ জার্মানীর জন্য কিছুটা ভোগান্তির সৃষ্টি করতে পারে.
রাজ্যপাল সের্গেই ইরোশেঙ্কো ও নাখোদকা শহরে উত্তর কোরিয়া দেশের কনস্যুলেটের প্রধান কনসাল পারস্পরিক সহযোগিতা নিয়ে আলোচনা করেছেন, এই আলোচনায় পর্যটন, বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বিষয়ে সহযোগিতা, যোগাযোগ বৃদ্ধি ও বিদ্যুত ও জ্বালানী ক্ষেত্রে সহযোগিতা, খনিজ তেল ও গ্যাসের বিষয়ে সহযোগিতা নিয়ে কথা হয়েছে.
ইয়াকুতিয়া থেকে যাই নেওয়া হোক না কেন –তা "সবচেয়ে" এই শব্দটা ব্যবহার না করে করা যায় না. আয়তন, খনিজ সম্পদ, আবহাওয়া, পরিবেশের সৌন্দর্য – সবই এখানে রেকর্ড পরিমানে. এই বছরের গরমের শেষে এই রাজ্য আরও একটি বিরল ব্র্যান্ডের অধিকারী হয়েছে – সাফল্যের সঙ্গে ইতিহাসে প্রথমবার "ইয়াকুতিয়া রাজ্যে হীরক সপ্তাহ" পালন করেছে. ইয়াকুতিয়া – রাশিয়ার সবচেয়ে বড় রাজ্য.
রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন আজ ঘোষণা করেছেন, যে তিনি ভ্লাদিভস্তকে এ্যাপেকের শীর্ষসম্মেলনের ফলাফলে পুরোপুরি সন্তুষ্ট. সমাপ্তিমুলক সাংবাদিক সম্মেলনে পুতিন বলেছেন, যে এই সংস্থার ইতিহাসে এটা সবচেয়ে সফল শীর্ষসম্মেলন. সেই সাথেই আজ ২১টি দেশের রাষ্ট্রপ্রধানরা অর্থনৈতিক এক ঘোযণাপত্র স্বাক্ষর করেছেন. আমন্ত্রক হিসাবে রাশিয়া আলোচ্য বিষয়সূচী নির্ধারন করেছিল ও সহযোগিতার বিভিন্ন ক্ষেত্রে তার অগ্রাধিকার জানিয়ে ছিল. উপোরক্ত ঘোষণাপত্রেও তা প্রতিফলিত হয়েছে.
শনিবার ভ্লাদিভস্তোকে এ্যাপেকের শীর্ষসম্মেলনে চীনের চেয়ারম্যান হু জিনটাও বলেছেন, যে তার দেশ এশীয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকায় অর্থনৈতিক উন্নয়নের ক্ষেত্রে ইঞ্জিনের ভুমিকা পালন করে যাবে. তার কথায়, চীন আভ্যন্তরীন চাহিদা ১৫% বাড়ানোর চেষ্টা করছে. তার মতে এর ফলে বহু নতুন কর্মসংস্থান করা যাবে ও এলাকা ও গোটা বিশ্বের অর্থনীতির জন্য তা হবে মঙ্গলজনক.
আজ ভ্লাদিভস্তোকে এ্যাপেকের কর্মবৈঠক সম্পন্ন হয়েছে. এশীয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের দেশগুলির রাষ্ট্রপ্রধানরা ও ৫০০-রও বেশি প্রথমসারীর শিল্পপতি সেখানে অংশ নিয়েছিলেন. মনোযোগের কেন্দ্রে ছিল রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন ও প্রথম উপ-প্রধানমন্ত্রী ইগর শুভালভের বক্তৃতা. তারা উভয়েই অর্থনৈতিক ঐক্যবদ্ধতার উপর জোর দিয়েছেন. এ্যাপেকের কর্মবৈঠকের উদ্বোধন করেছিলেন ভিটিবি ব্যাঙ্কের প্রধান আন্দ্রেই কোসতিন.
ভ্লাদিভস্তোকে প্রথম যৌথ অধিবেশন শুরু হয়েছে এ্যাপেকের শীর্ষসম্মেলনে. ভ্লাদিমির পুতিন সম্বর্ধনাদায়কের ভূমিকায় সম্মেলনের উদ্বোধন করেছেন. রাষ্ট্রপতির সহকারী ইউরি উশাকভ জানিয়েছেন, যে আলোচ্যসূচিতে আছে আর্থ-বাণিজ্যিক উদারপন্থা, আঞ্চলিক আর্থিক জোরদার সহযোগিতা, খাদ্যদ্রব্যের নিরাপত্তা মজবুত করা, পরিবহন ব্যবস্থার আধুনিকীকরন. বিজনেস ফোরামের কার্যকলাপের মূল্যায়ন করা হবে ও ভাবী পরিকল্পনা সংকলন করা হবে – বলেছেন তিনি.
রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন আজ এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় সহযোগিতা সংস্থার ব্যবসায়িক শীর্ষ সম্মেলনে অংশ নিয়েছেন, যা ভ্লাদিভস্তক শহরে হচ্ছে. ভ্লাদিমির পুতিন শুধু এই এলাকার দেশ গুলির নেতৃত্বের আলোচ্য বিষয় গুলি নিয়ে নিজের দৃষ্টিকোণের কথাই বলেন নি, বরং ব্যবসায়িক সমাজের প্রতিনিধিদের প্রশ্নের উত্তরও দিয়েছেন.
কাতার আগামী ৫ বছরের মধ্যে মিশরের অর্থনীতিতে প্রায় ১ হাজার ৮০০ কোটি ডলার বিনিয়োগ করবে. মিশরের প্রধানমন্ত্রী হিশাম কান্ডিলার উদ্ধৃতি দিয়ে ফ্রান্স প্রেস সংবাদসংস্থা এই তথ্য জানিয়েছে. অর্থ নাকি ঢালা হবে পর্যটন ব্যবসায়, শিল্পক্ষেত্রে ও জ্বালানীশক্তি উত্পাদনের ক্ষেত্রে. মিশরের পোর্ট-সঈদ শহরে শিল্প-কমপ্লেক্স বানানোর জন্য ৮০০ কোটি ডলার দেওয়া হবে.
ভ্লাদিভস্তকে এশিয়া-প্রশান্ত মহাসাগরীয় দেশগুলির শীর্ষবৈঠক শুরু হতে চলেছে. রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন বৈঠকের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন আজ. তিনি তাঁর বক্তব্যে রাশিয়ার বর্তমান অর্থনৈতিক অবস্থা ও ঐ অঞ্চলের আর্থিক পরিস্থিতি সম্পর্কে বিবৃতি রাখবেন. আপাততঃ সেখানে বাণিজ্য সংক্রান্ত আলোচনা চলছে. সেখানে ৫০০টিরও বেশি আন্তর্জাতিক কর্পোরেশনের টপ-ম্যানেজাররা অংশ নিচ্ছেন. মুখ্য প্রশ্ন –  ঐ এলাকায় অর্থনৈতিক সংহতি ও সহযোগিতা বাড়ানো.
রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন ভ্লাদিভস্তক শহরে উড়ে এসেছেন, যেখানে এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় সহযোগিতা সংস্থার সপ্তাহ ব্যাপী শীর্ষ সম্মেলন চলছে, আর শুক্রবারেই এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অর্থনৈতিক সহযোগিতা সংস্থার নেতৃস্থানীয় ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সম্মেলন চালু হতে চলেছে.
সমাকলন – এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকার অর্থনৈতিক বিকাশের জন্য বন্ধক রাখার মতো বিষয়, - এই ভাবেই ভ্লাদিভস্তকে শীর্ষ সম্মেলনের প্রধান ধারণাকে বর্ণনা করেছেন ভ্লাদিমির পুতিন. এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অর্থনৈতিক সহযোগিতা সংস্থার শীর্ষ সম্মেলনের প্রাক্কালে রাশিয়ার রাষ্ট্র প্রধানের এক প্রবন্ধ আমেরিকার নেতৃস্থানীয় সংবাদপত্র “দ্য ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের” এশিয় সংস্করণে প্রকাশ করা হয়েছে.
গণ প্রজাতন্ত্রী চিন ও ভারতবর্ষ চুক্তি করেছে যে, তারা আবার যৌথ ভাবে সামরিক প্রশিক্ষণ করবে ও দুই দেশের সামুদ্রিক নৌবাহিনীর মধ্যে সহযোগিতা বৃদ্ধি করবে. এই বিষয়ে দিল্লী শহরে চিনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী লিয়াং গুয়াঙ্গলিয়ে ও ভারতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী আরাক্কাপারামবিল কুরিয়েন অ্যান্টনির মধ্যে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকের পরে প্রকাশিত এক খবরে প্রকাশ করা হয়েছে.
আগের
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
সেপ্টেম্বর 2012
ঘটনার সূচী
সেপ্টেম্বর 2012
4
10
12
13
16
17
20
22
23
25
26
27
28
29
30