×
South Asian Languages:
রাশিয়ার পরিস্থিতি, জুন 2013
সেন্ট পিটার্সবার্গে বৃহস্পতিবারে শুরু হয়েছে ১৭তম আন্তর্জাতিক অর্থনৈতিক ফোরাম. এই ফোরামে অংশ নিয়েছেন বিশ্বের ৬৬টি দেশের সরকারি প্রতিনিধি দল. অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে – ১৯০ জন বৃহত্তম বিদেশী কোম্পানীর প্রধান ও ৪২৮ জন রুশ কোম্পানীর প্রধানরা রয়েছেন. রাশিয়ার অর্থনীতিতে বিনিয়োগের বিষয়ে এগিয়ে রয়েছে জ্বালানী শক্তি সংক্রান্ত শিল্প ক্ষেত্র. এই শিল্প সবচেয়ে বেশী মূলধন সংলগ্ন রুশ অর্থনীতির শিল্প ক্ষেত্র.
রাশিয়ার পক্ষ থেকে সুমেরু এলাকায় সক্রিয়তা বৃদ্ধি – এটা পশ্চিমের দেশ গুলির কাজকর্মের প্রত্যুত্তর. মস্কো বাধ্য হয়েছে এই ধরনের ব্যবস্থা নিতে, যাতে নিজেদের ভূ-রাজনৈতিক স্বার্থ সুরক্ষিত হয়.
রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন ২০১৪- ১৬ সালের বাজেট বার্তা পেশ করেছেন. দেশের আয় ব্যয়ের ক্ষেত্রে প্রাথমিক নীতি একই থাকছে – এটার মধ্যে সব থেকে আগে সামাজিক বাধ্যতা মূলক কাজকর্ম নিঃশর্তে করা. এই লক্ষ্যে পৌঁছনোর জন্য উপায় শুধু পাল্টাবে. রাশিয়ার প্রধান আবারও বলেছেন যে, শিক্ষা, বিজ্ঞান, পরিকাঠামো, সামাজিক ক্ষেত্র ও ব্যবসায়ে উদ্যোগ প্রশ্রয় দেওয়ার জন্য খরচের অংশ বাড়া এখনও চলতে থাকবে.
আজ থেকে ২১ বছর আগে রুশ জনগনের এক নতুন উত্সবের সূচনা হয়েছিল – রুশ প্রজাতন্ত্রের সার্বভৌমত্ব সম্বন্ধে ঘোষণা গ্রহণ দিবস. এই সিদ্ধান্ত দেশের পার্লামেন্ট নিয়েছিল দেশের আধুনিক ইতিহাসের এক সব থেকে জটিল সময়ে. তার পর থেকে ১২ই জুন – দেশের সবচেয়ে বড় রাষ্ট্রীয় উত্সব দিবস, যেটির সঙ্গে দেশ সদ্য শুরু করেছে অভ্যস্ত হতে.
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
জুন 2013
ঘটনার সূচী
জুন 2013
1
2
3
4
5
6
7
8
9
10
11
14
15
16
18
19
21
22
23
24
25
26
27
28
29
30