×
South Asian Languages:
চিনের ঘটনা ও রাশিয়ার অবস্থান, এপ্রিল 2013
মঙ্গলবারে ভারতের পররাষ্ট্র দপ্তর থেকে ঘোষণায় অভিযোগ জানানো হয়েছে যে, চিনের বাহিনী জম্মু ও কাশ্মীরের লাদাখ এলাকায় বাস্তব নিয়ন্ত্রণ রেখা পার হয়ে এসে জায়গা নিয়েছে. ভারতীয় পক্ষ দাবী করেছে অবিলম্বে চিনের সেনা বাহিনীকে নিজেদের এলাকায় চলে যাওয়ার জন্য আর একই সঙ্গে নিজেদের বাহিনী পাঠিয়েছে বিতর্কিত এলাকায়.
গণ প্রজাতন্ত্রী চিনের নৌবাহিনীতে বিমানবাহী যুদ্ধ জাহাজ “লিয়াওনিন” উদয় হওয়া যদি অতিরঞ্জিত গণ আবেগের সঞ্চার করে থাকে, তবে কিছু পশ্চিমের গবেষকদের জন্য তাতে উল্টো প্রতিক্রিয়াই দেখতে পাওয়া গিয়েছে. পশ্চিমে চেষ্টা করা হচ্ছে “লিয়াওনিন” ও চিনের সমগ্র বিমানবাহী যুদ্ধ পরিকল্পনাকেই খুব মর্যাদাপূর্ণ প্রকল্প বলেই ধরার, কিন্তু তার কোনও বাস্তব সামরিক অর্থ নেই বলা হচ্ছে.
২০১৫ সালের মধ্যে চিন পরিকল্পনা করেছে আন্টার্কটিকা এলাকায় নিজেদের বৈজ্ঞানিক স্টেশনের সংখ্যা তিন থেকে পাঁচ করার. বিশেষজ্ঞদের মতে আন্টার্কটিকায় নিজেদের উপস্থিতি প্রসারিত করে ও আর্কটিক এলাকাতেও নিজেদের গবেষণা বৃদ্ধি করে বেজিং নিজেদের বিশ্বজোড়া প্রভাবকেই শক্তিশালী করতে চাইছে. আন্টার্কটিকা এলাকায় গবেষণা করার আগ্রহ চিনের বৈজ্ঞানিকরা তুলনামূলক ভাবে অল্পদিন হল শুরু করেছে.
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
এপ্রিল 2013
ঘটনার সূচী
এপ্রিল 2013
1
2
3
4
6
7
8
10
11
12
13
14
15
16
17
18
19
20
21
22
23
25
26
27
28
29
30