×
South Asian Languages:
জাপান, জুন 2011
জাপানের সরকার দেশের পারমাণবিক নিরাপত্তা ব্যবস্থায় বড় বড় ত্রুটি থাকার কথা স্বীকার করেছে এবং তার আমূল পুনর্বিবেচনার জন্য প্রস্তুত. আন্তর্জাতিক পারমাণবিক শক্তি এজেন্সির জন্য টোকিওর দ্বারা প্রস্তুত রিপোর্টে এ কথা বলা হয়েছে. তাতে উল্লেখ করা হয়েছে যে, সরকার সম্ভাব্য প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের পরিসর ঠিক মতো মূল্যায়ন করতে পারে নি. কর্তৃপক্ষ তাছাড়া গুরুতর ঘটনার ক্ষেত্রে প্রস্তুতির অভাবের কথাও স্বীকার করেছে.
জাপানের “ফুকুসিমা-১” পারমাণবিক বিদ্যুত্ কেন্দ্রের দুর্ঘটনাগ্রস্ত রিয়াক্টর থেকে প্লুটোনিয়ামের সামান্য অংশ এই প্রথম খুঁজে পাওয়া গেছে কেন্দ্রের সীমানার বাইরে. জাপানের কানাজাওয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশেষজ্ঞরা পারমাণবিক বিদ্যুত্ কেন্দ্রের প্রধান প্রবেশ পথ থেকে দেড় কিলোমিটারেরও বেশি দূরে মৃত্তিকায় তেজষ্ক্রিয় আইসোটোপ খুঁজে পেয়েছেন. বিজ্ঞানীরা নিরুপণ করেছেন যে, তা “ফুকুসিমা-১” কেন্দ্রের রিয়াক্টর থেকেই এসেছে.
জাপানের পার্লামেন্ট নাওতো কানসরকারের প্রতি অনাস্থার বোট আনতে অস্বীকার করেছে. এ প্রস্তাব পাশকরানোর জন্য প্রতিপক্ষের প্রায় দশটি ভোট কম পড়েছিল. গণ-প্রতিনিধিদের সিদ্ধান্তের প্রভাব বিস্তার করেছে প্রধানমন্ত্রীর আজকের এ বিবৃতি যে, তিনি স্বেচ্ছায় পদত্যাগ করতে প্রস্তুত, মার্চ মাসের ভূমিকম্পের পরে দেশের পুনর্স্থাপনে এবং দুর্যোগের দরুণ “ফুকুসিমা” পারমাণবিক বিদ্যুতে কেন্দ্রে দুর্ঘটনার কুপরিণতি দূর করায় নিজের ভূমিকা পালন শেষ হলেই.
জাপানের কর্তৃপক্ষ নিজের পারমাণবিক বিদ্যুত্ কেন্দ্রগুলির জন্য সুনামীর বিপদের সঠিক মূল্যায়ন করতে পারে নি. এ সম্বন্ধে বলা হয়েছে আন্তর্জাতিক পারমাণবিক শক্তি এজেন্সির বিশেষজ্ঞদের রিপোর্টে, যারা জাপানে বিশেষ সফরে পৌঁছেছেন. জাপানের “ফুকুসিমা-১” পারমাণবিক বিদ্যুত্ কেন্দ্রের ঘটনা দেখিয়েছে যে, দুর্ঘটনার ক্ষেত্রে জরুরী পরিস্থিতিতে প্রতিক্রিয়ার কেন্দ্রগুলির তত্পরতা বাড়ানো প্রয়োজন.
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
জুন 2011
ঘটনার সূচী
জুন 2011
3
4
5
7
9
10
11
12
13
15
16
17
18
19
20
26