×
South Asian Languages:
ন্যাটো জোট, নভেম্বর 2011
আগামী সপ্তাহে বন শহরে শুরু হতে যাওয়া আফগানিস্তান সংক্রান্ত আন্তর্জাতিক সম্মেলনে পাকিস্তান ঠিক করেছে যাবে না. গত শনিবারে ভোর রাতে আফগান সীমান্তের কাছে পাকিস্তানের সীমান্ত চৌকিতে ন্যাটো জোটের তরফ থেকে গুলি বর্ষণের প্রতিবাদে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে. আকাশ পথে হামলায় নিহত হয়েছেন কম করে হলেও ২৪ (২৫) জন পাক জওয়ান. বিশদ করে লিখেছেন আমাদের সমীক্ষক গিওর্গি ভানেত্সভ.
আফগানিস্তানের রাষ্ট্রপতি হামিদ কার্জাই আশা করছেন যে, পাকিস্তান আগামী সপ্তাহে জার্মানির বন শহরে আফগানিস্তান সম্পর্কে যে আন্তর্জাতিক সম্মেলন শুরু হচ্ছে তা বয়কট করার সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করবে. জার্মানির সাপ্তাহিক “শ্পিগেল” পত্রিকাকে মঙ্গলবার ইন্টারভিউ দিয়ে কার্জাই বলেন, “সীমানার ঘটনা সম্মেলনে পাকিস্তানের অংশগ্রহণ না করার কারণ হওয়া উচিত নয়.
আফগানিস্তানের সাথে সীমানায় পাকিস্তানী প্রহরা-চৌকির উপর ন্যাটো জোটের বিমান আঘাত হল ইচ্ছাকৃত আগ্রাসনী ক্রিয়া. এ সম্বন্ধে “রয়টার” সংবাদ এজেন্সিকে প্রদত্ত ইন্টারভিউতে বলেছেন পাকিস্তানের সশস্ত্র বাহিনীর অধিনায়কমন্ডলীর উচ্চপদস্থ প্রতিনিধি মেজর-জেনারেল ইসহাক নাদিম.
ইউরোপে মার্কিনী রকেটবিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা মোতায়েনের মার্কিনী পরিকল্পনার বাস্তবায়ন উপলক্ষে ইউরোপের পরিস্থিতি বুধবার মস্কো সাক্ষাতে আলোচনা করবেন রাশিয়া ও ন্যাটো জোটের প্রতিনিধিরা. তাতে অংশগ্রহণ করবেন রাশিয়ার সশস্ত্র বাহিনীর সদর দপ্তরের সহকারী অধিকর্তা ভালেরি গেরাসিমোভ এবং ন্যাটো জোটের আন্তর্জাতিক সামরিক সদর দপ্তরের অধিকর্তা ইউর্গেন বর্নেমান. পয়লা ডিসেম্বর লেফটেনেন্ট-জেনারেল বর্নেমান রাশিয়ার সামরিক সদর দপ্তরের সামরিক অ্যাকাডেমির অধ্যাপক ও ছাত্রদের সামনে বক্তৃতা দেবেন.
রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রী সের্গেই লাভরভ ন্যাটো জোটের কাজকর্ম তদন্ত করার আহ্বান জানিয়েছেন. শনিবারে জোটের শক্তি পাকিস্তানের সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর ঘাঁটিতে আকাশ থেকে আঘাত হেনেছে. ন্যাটো জোটের সাধারন সম্পাদক আন্দ্রেস ফন রাসমুসেন ইতিমধ্যেই ঘোষণা করেছেন যে, ঘটনা মনোযোগ দিয়ে তদন্ত করে দেখা হবে. প্রসঙ্গতঃ পাকিস্তানের সরকার তদন্তের ফলের অপেক্ষা করতে রাজী না হয়ে সঙ্গে সঙ্গেই জোটকে উত্তর দিয়েছে.
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সশস্ত্র বাহিনীর কেন্দ্রীয় অধিনায়কমন্ডলী ২৪ জন পাকিস্তানী সৈনিকের মৃত্যুর পরিস্থিতির তদন্তে পাকিস্তান ও আফগানিস্তানের কর্তৃপক্ষের সাথে সহযোগিতার প্রস্তুতির কথা মঙ্গলবার ঘোষণা করেছে. অধিনায়কমন্ডলীর বিবৃতিতে বলা হয়েছে যে, কাবুল ও ইস্লামাবাদ “তদন্তে অংশগ্রহণের আমন্ত্রণ পাবে”, জানিয়েছে “ইন্টারফাক্স” সংবাদ সংস্থা.
পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইউসুফ রজা গিলানী মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে সতর্ক করে দিয়েছেন যে, দু দেশের মাঝে সম্পর্ক বর্তমানের ধারায় আর চলতে পারে না. গিলানী জোর দিয়ে বলেন যে, ন্যাটো বাহিনীর দ্বারা পাকিস্তানী সৈনিকদের হত্যা, এবং তাছাড়া পাকিস্তানের ভূভাগে স্থানীয় কর্তৃপক্ষের সম্মতি ছাড়া মার্কিনী বিশেষ বাহিনীর দ্বারা উসামা বিন লাদেনকে ধ্বংস করা দেশের সার্বভৌমত্ব লঙ্ঘন করে.
লিবিয়ার নতুন ক্ষমতায় আসা লোকেরা, যারা কিনা মুহম্মর গাদ্দাফিকে খুন করেছে স্বাধীনতা ও গণতন্ত্রের জন্য, তাদেরকেই এখন মানবাধিকার রক্ষার বিষয়ে অসদাচরণের জন্য কড়া সমালোচনায় পড়তে হয়েছে. রাষ্ট্রসঙ্ঘের মহাসচিব বান কী মুন অন্তর্বর্তী কালীণ জাতীয় পরিষদকে দেশের যে কোন প্রজাতির মানুষের অধিকার খর্ব করা বন্ধ করতে আহ্বান করেছেন. আর নির্দিষ্ট করে বলতে হলে- দেশের কালো চামড়ার মানুষদের ও অভিবাসিত শ্রমিকদের অধিকার.
পাকিস্তান সোমবার এ খবর অস্বীকার করেছে যে, পাকিস্তানী সৈনিকরা প্রথম অগ্নিবর্ষণ করেছে, যা আফগান- পাক সীমান্তে ন্যাটো বাহিনীর আঘাত প্ররোচিত করেছে. জানানো হয়েছিল যে, শনিবার ন্যাটো জোটের হেলিকপ্টার আক্রমণের ফলে ২৪ জন পাকিস্তানী সামরিক কর্মচারী নিহত হয়েছে.
শনিবার ভোর রাতে আফগানিস্তান সীমান্তের পাক সেনা ঘাঁটিতে ন্যাটো বাহিনীর হেলিকপ্টার হানার ঘটনা ঘটেছে. নিহত হয়েছেন ২৮ জন পাক সেনা. এই ঘটনার প্রতিক্রিয়ায় পাকিস্তান সরকার আফগানিস্তানে অবস্থান রত ন্যাটো সেনাদের রসদ সরবরাহের সীমান্তবর্তী সমস্ত পথ বন্ধ করে দিয়েছে.
আফগানিস্তানের রাষ্ট্রপতি হামিদ কার্জাই গত রবিবার ঘোষণা করেছেন যে, ন্যাটো জোট দেশের কর্তৃপক্ষের হাতে আফগান ভূভাগের দ্বিতীয় অংশের নিয়ন্ত্রণ হস্তান্তর করবে. এ পদক্ষেপ হল আফগান শৃঙ্খলা রক্ষা বিন্যাসের হাতে দেশের নিরাপত্তা নিয়ন্ত্রণের দায়িত্ব হস্তান্তরের পরিকল্পনার অংশ. এই ক্ষমতা হস্তান্তর সম্পূর্ণভাবে শেষ হওয়ার কথা ২০১৪ সালের শেষ দিকে.
ন্যাটের হামলায় পাকিস্তানী সেনা নিহত হওয়ার ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারী ক্লিনটন ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী লিওন পানেতা যৌথ বিবৃতিতে শোক প্রকাশ
সিরিয়া আরব দেশ গুলির লীগের পর্যবেক্ষক দলকে দেশে আসতে অনুমতি দিয়েছে, যাদের মধ্যে থাকছে মানবাধিকার রক্ষা পরিষদের কর্মী প্রতিনিধিরা, সামরিক বাহিনীর লোকেরা আর সাংবাদিকেরা. এই প্রসঙ্গে দামাস্কাসের বিরুদ্ধে আরব লীগের পক্ষ থেকে নিষেধাজ্ঞার হুমকি আগের মতোই দেওয়া হচ্ছে.
গতকাল আফগানিস্তানের দক্ষিণাঞ্চলে ন্যাটোর সামরিক বাহিনী আকাশ থেকে বোমাবর্ষণ করায় ৬টি শিশু সহ মোট ৭ জন নিহত হয়েছে. বি.বি.সি. জানিয়েছে, যে আফগানি রাষ্ট্রপতি হামিদ কার্জাই এই দুস্কর্মের তীব্র সমালোচনা করেছেন. ঐ বোমাবর্ষণ করা হয় তালিবদের লক্ষ্য করে, যাদের ঠিক তার আগে রাস্তার পাশে মাইন পোঁতার সময় আবিস্কার করা হয়েছিল.
ইউরোপে রকেটবিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা নির্মাণ করার মার্কিনী পরিকল্পনার কড়া সমালোচনা করেছেন রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দমিত্রি মেদভেদেভ. মেদভেদেভ ক্ষমতায় থাকাকালীন এই প্রথম রাশিয়ার সামরিক শক্তি বৃদ্ধি করার সম্প্রসারিত নক্সা প্রদর্শন করা হয়েছে.     প্রথমতঃ প্রতিরক্ষামন্ত্রককে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, যে অনতিবিলম্বে কালিনিনগ্রাদে রেডার ষ্টেশন স্থাপণ করার, যা রকেটের আক্রমণ সম্মন্ধে সতর্ক করে দিতে পারবে.
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হোয়াইট হাউজ এবং পররাষ্ট্র বিভাগ রকেটবিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা প্রতিরোধের ব্যবস্থা সম্পর্কে রাশিয়ার নেতৃবৃন্দের বিবৃতির উত্তর দিয়েছে আগে ঘোষিত থিসিসের পুনরাবৃত্তি করে. ওয়াশিংটনে ঘোষণা করা হয়েছে যে, রকেটবিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা গঠনের পরিকল্পনা বদলাচ্ছে না. রকেটবিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা রাশিয়ার বিরুদ্ধে নির্দেশিত নয়, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জন্য প্রধান বিপদ হল ইরান, আর ওয়াশিংটন আগের মতোই রাশিয়ার সাথে সহযোগিতার জন্য প্রস্তুত.
রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দিমিত্রি মেদভেদেভ ইউরোপে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো জোটের রকেট বিরোধী ব্যবস্থা তৈরীর উত্তর হিসাবে যে সমস্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে তার সম্বন্ধে বলেছেন. প্রথম পদক্ষেপ হবে অবিলম্বে কালিনিনগ্রাদের রেডিও নির্ণয় ব্যবস্থায় সামরিক অংশ জোড়া হবে, যা রকেট আঘাত সম্বন্ধে পূর্বাভাস দিতে সক্ষম.
রাশিয়া রকেট বিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা সম্পর্কে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাথে সংলাপ চালিয়ে যেতে প্রস্তুত, এই কথা বুধবার বলেছেন রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দিমিত্রি মেদভেদেভ. তবে, মস্কোর পরবর্তী পদক্ষেপ নির্ভর করবে বাস্তব ঘটনা পরম্পরার উপরেই.
এই বছর দশম বছর যখন থেকে গোল্ডম্যান স্যাক্স ব্যাঙ্কের অর্থনীতিবিদ জিম ও নিল প্রথম চারটি সবচেয়ে দ্রুত উন্নতিশীল অর্থনীতির দেশের নাম সংক্ষেপ করে ব্রিক (ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত ও চিন) নামে উল্লেখ করে ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন যে, একবিংশ শতকের মাঝামাঝি এই দেশ গুলি সম্মিলিত জাতীয় বার্ষিক উত্পাদনের হারে বড় সাত দেশকে ছাপিয়ে যাবে.
আগের
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
নভেম্বর 2011
ঘটনার সূচী
নভেম্বর 2011
4
5
6
7
8
10
11
13
14
15
16
19
20
21
26