×
South Asian Languages:
বিজ্ঞান, জুন 2012
রাশিয়ার প্রতিরক্ষা শিল্পের কোম্পানীগুলি নিজেদের তৈরী সর্বাধুনিক প্রযুক্তি প্রদর্শনী করেছে মস্কো উপকণ্ঠের ঝুকোভস্কি শহরের “যন্ত্র নির্মাণে প্রযুক্তি – ২০১২” ফোরামে. এখানে দেখানো নতুন জিনিস গুলির মধ্যে একটি অন্যতম নতুন জিনিস হয়েছে ভরোনেজ শহরের “সজজ্ভেজদিয়ে” কনসার্নের কৌশল গত ক্ষেত্রে স্বয়ংক্রিয় ভাবে সামরিক বাহিনীর নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা.
পাকিস্তানের “চাশমা” পারমানবিক বিদ্যুত কেন্দ্রে বর্তমানে কার্যকরী দুটি রিয়্যাক্টরের সঙ্গে চিন আরও পরিকল্পনা নিয়েছে দুটি রিয়্যাক্টর বসানোর, আর এই ঘটনা বিশ্ব সমাজের উদ্বেগের কারণ হয়েছে. ভারতের টাইমস অফ ইন্ডিয়া সংবাদপত্র এই প্রসঙ্গে বৃহস্পতিবারে একটি বড় প্রবন্ধ প্রকাশ করেছে. প্রবন্ধে বলা হয়েছে এই সমস্যার রাজনৈতিক দিকটি নিয়ে কিন্তু প্রযুক্তিগত দিকটি প্রবন্ধের বাইরে থেকে গিয়েছে.
ভারতের বিমান বাহিনী রাশিয়া- ভারতের যৌথ উদ্যোগে নির্মিত শব্দাতীত রকেট ব্রামোস ২০১৪ সালে নিজেদের অস্ত্র সম্ভারে যোগ করবে. এই বিষয়ে জানিয়েছেন মস্কো উপকণ্ঠের ঝুকোভস্কি শহরে আয়োজিত “যন্ত্র নির্মাণে প্রযুক্তি – ২০১২” ফোরামে ব্রামোস কোম্পানীর জেনারেল ডিরেক্টর শিবথানু পিল্লাই.
প্রিয় বন্ধুরা, আদাব! শুভ অপরাহ্ন! স্টুডিও থেকে আপনাদের স্বাগত জানাচ্ছে ভাষ্যকার কৌশিক দাস. আজ আপনারা শুনবেন--- হালাল খাদ্য – বিমান যাত্রীদের জন্য. রাশিয়ায় এই প্রথম বিমান যাত্রীদের জন্য হালাল খাদ্যের ব্যবস্থা করা হয়েছে. কাজানে তৃতীয়বার তাতারদের ধর্মীয় কর্মীদের সর্বরাশিয় সম্মেলন হয়ে গেল. মস্কো বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্গত এশিয়া ও আফ্রিকার দেশসমূহের উচ্চ শিক্ষায়তনের সম্পর্কে বলবেন রাশিয়ায় সৌদী আরবের রাষ্ট্রদূত.
জাপানের পারমানবিক বিদ্যুত কেন্দ্র “ফুকুসিমা” বিপর্যয়ের পরে হতাশা বাদী লোকদের পূর্বাভাস মেলে নি. বিশ্বে পারমানবিক শক্তি থেকে নিরত হওয়ার ঘটনা ঘটে নি. বরং উল্টো হয়েছে, অনেক দেশের সংখ্যা বেড়েছে, যেখানে নতুন করে পারমানবিক বিদ্যুত কেন্দ্র গড়তে চাওয়া হয়েছে.
“ভারতকে নতুন করে আবিস্কার করো” – সিনেমা, সঙ্গীত, থিয়েটার, ফোটোগ্রাফি, ফ্যাশন, সাহিত্য ও বিজ্ঞানের বিষয়ে. নিজেদের সামনে এই কর্তব্য রেখেছেন ‘ওপেন ইন্ডিয়া’ নামক প্রথম রাশিয়ায় আয়োজিত আধুনিক ভারতীয় সিনেমা ও সংস্কৃতি উত্সবের সংগঠকেরা. এর উদ্যোক্তা সেন্ট-পিটার্সবার্গের ‘বেরেগ’ নামক আন্তর্জাতিক শিল্প কেন্দ্র.
আমেরিকার মিডিয়া কনসার্ন “ওয়াল্ট ডিসনি” ঠিক করেছে ফাস্ট ফুডের বিজ্ঞাপন বন্ধ করার. ২০১৫ সাল থেকেই তাদের টেলিভিশন ও রেডিও চ্যানেলে, আর তারই সঙ্গে ইন্টারনেটের ওয়েবসাইটে চিপস্, হ্যামবার্গার আর কোকা-কোলা জাতীয় পানীয়ের কোনও বিজ্ঞাপন থাকবে না.
এই সপ্তাহে ওয়াশিংটনে তৃতীয় বাত্সরিক ভারত – মার্কিন স্ট্র্যাটেজিক আলোচনা স্পষ্ট করেই দেখিয়ে দিয়েছে যেমন আংশিক ভাবে দুই দেশের স্বার্থের বিষয়ে সম্মতি, তেমনই অবস্থানের বিষয়ে দুই দেশের যথেষ্ট পার্থক্য, এই কথা মনে করে রাশিয়ার স্ট্র্যাটেজিক গবেষণা কেন্দ্রের বিশেষজ্ঞ বরিস ভলখোনস্কি তাঁর মত ব্যক্ত করেছেন. অর্থনৈতিক দিকে দুই পক্ষেরই প্রশংসনীয় সাফল্য রয়েছে বলে রুশ বিশেষজ্ঞ উল্লেখ করেছেন.
চিনের “সিনহুয়া” সংস্থা সরকারি ভাবে জানিয়েছে যে, ১৬ই জুন চিন থেকে পাইলট পরিচালিত মহাকাশযান “শেন্চঝৌ- ৯” তিন জন মহাকাশচারী কে নিয়ে মহাকাশে রওয়ানা হবে. এই বারে প্রথম চিনের মহাকাশচারীদের মধ্যে থাকছেন মহিলা.
রক্তদানকরী প্রত্যেকে- বীর. এই শ্লোগান নিয়ে এ বছরে রক্তদানকারীদের আন্তর্জাতিক দিবস পালিত হচ্ছে. এর পত্তন করা হয়েছিল ২০০৫ সালের মে মাসে ওয়ার্ল্ড হেল্থ অর্গানাইজেশনের ৫৮ তম অধিবেশনে এবং তখন থেকে প্রত্যেক বছর ১৪ই জুন ঐ দিবস পালন করা হয়. দিনটি এমনি এমনি বাছা হয়নি.
 “রেডিও রাশিয়ার” ডিজিট্যাল অডিও ব্রডকাস্টিং (ড্যাব) অনুষ্ঠান, যে তরঙ্গে এবার থেকে আমাদের শোনা যাবে, তার একটা উপস্থাপনা লন্ডনে ১২ই জুন রাশিয়ার দূতাবাসে করা হয়েছে. “লন্ডন থেকে “রেডিও রাশিয়া”” নামে এই অনুষ্ঠান এখন থেকে শোনা যাবে.  ২০১২ সালের ২৬শে মার্চ থেকে এই অনুষ্ঠান সম্প্রচার শুরু হয়েছে.
 চিনের পদক জয়ের জন্য কোনও আলাদা পরিকল্পনা নেই. প্রধান বিজয় ন, বরং অংশগ্রহণ, মনে করিয়ে দিয়েছেন গণ প্রজাতন্ত্রী চিনের অলিম্পিক কমিটির সভাপতি ল্যু পেন. অলিম্পিক গেমস – এটা সমস্ত যুব সমাজের জন্য উত্সব, বিভিন্ন দেশ সম্মিলিত দলের জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ প্রতিযোগিতার মঞ্চ, - উল্লেখ করেছেন ল্যু পেন.
আজ রাশিয়ায় অন্যতম গুরুত্বপুর্ণ উত্সব – রাশিয়া দিবস. ১৯৯০ সালের ১২ই জুন রাষ্টীয় সার্বভৌমত্বের কথা ঘোষণা করা হয়, রাশিয়া পায় নিজস্ব জাতীয় পতাকা, জাতীয় গণসঙ্গীত ও নিজস্ব সংবিধান.    ঐতিহ্য অনুযায়ী, আজ রাষ্ট্রপতি সরকারী পুরস্কার দেবেন বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির ক্ষেত্রে, সাহিত্যে ও শিল্পে এবং মানবিক কর্মকান্ডে.    রেড স্কোয়ারে ৫ ঘন্টাব্যাপী ‘তরুণ রাশিয়া’ নামক জলসা হবে.
সাংহাই সহযোগিতা সংস্থার শীর্ষবৈঠকে, যা কয়েকদিন আগে বেজিং শহরে হয়েছে, সেখানে ভারতের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করতে এসেছিলেন পররাষ্ট্র মন্ত্রী সোমানাহল্লি কৃষ্ণ, প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহ নয়. এটা বোঝাই গিয়েছিল আপাততঃ যখন ভারতের অবস্থান এই সংস্থায় পর্যবেক্ষকের থেকে সদস্য করা হয় নি, তখন ভারত থেকে তো মনে হয় না শীর্ষবৈঠকে সর্বোচ্চ পর্যায়ের কাউকে পাঠানো হবে.
চীনের চালকবাহী মহাজাগতিক যানের মহাকাশ পাড়ি এই মাসেই ঘটতে চলেছে. ‘সিনহুয়া’ সংবাদসংস্থা জানাচ্ছে, যে গানসু প্রদেশের কসমোড্রম থেকে রকেটবাহী ‘চানঝেন-২এফ’ মহাকাশে পাড়ি দেবার জন্য তৈরি হচ্ছে. সে পৃথিবীর কক্ষপথে মহাকাশ যান ‘শেনঝোউ-৯’ কে পৌঁছে দিয়ে আসবে. মহাকাশে যানটি ইতিমধ্যেই সেখানে থাকা ‘ত্যানগুন-১’ নামক চীনা মড্যুলের সাথে সংযুক্ত হবে.
প্যারিসে আগামী ১১-১৫ অনুষ্ঠিতব্য আন্তর্জাতিক সামরিক প্রদর্শণীতে রাশিয়া নতুন সামরিক অস্ত্র, রকেটবিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ও বন্দুক প্রদর্শন করবে. ‘ইন্টারফ্যাক্স’ সংবাদসংস্থাকে ‘রসআবারোনএক্সপোর্ট’ কোম্পানী জানিয়েছে, যে বিদেশী বিশেষজ্ঞদের মনোযোগ সবার আগে আকৃষ্ট করবে আধুনিকীকৃত ট্যাঙ্ক ‘টি-৯০সি’ মডেল. এটা প্রায় নতুন ট্যাঙ্ক, যা বিশ্বের বাজারে অন্যতম সেরা.
 আঞ্চলিক নিরাপত্তা বজায় রাখা – বেজিংয়ে সাংহাই সহযোগিতা সংস্থার শীর্ষবৈঠকের প্রধান আলোচ্য বিষয়. এই সমস্যা ৬ই জুন রাশিয়া, চিন ও চারটি মধ্য এশিয়ার দেশের প্রধানরা তাঁদের নিজস্ব অধিবেশনে আলাদা করে আলোচনা করেছেন. বৃহস্পতিবারে এই আলোচনায় যোগ দিতে চলেছেন পর্যবেক্ষক দেশ গুলির নেতারা – মঙ্গোলিয়া, ভারত, পাকিস্তান ও ইরানের থেকে.
     রাশিয়া ও চিনের স্ট্র্যাটেজিক ভাবে সহকর্মী হিসাবে কাজ একটি অভূতপূর্ব উচ্চতায় পৌঁছেছে, আর দুই দেশের সম্পর্ক সমস্ত ক্ষেত্রেই তৈরী করা হচ্ছে এক পারস্পরিক ভাবে লাভজনক ভিত্তিতে ও সেই ক্ষেত্রে খুবই উচ্চ পর্যায়ের ভরসা ও খোলামেলা ভাব রয়েছে, বেজিং সফরে গিয়ে রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন এই কথা বলেছেন.
 রাশিয়ার সরকারি সংস্থা “রসঅ্যাটম” নিজেদের জন্য এক পাইলট বিহীণ জেপেলিন তৈরী করতে দিয়েছে. ৫০ মিটার ব্যাসের এই জেপেলিন যা গঠনের দিক থেকে অনেকটাই উড়ন্ত চাকীর মতো দেখতে হবে, তা শুরু করা হতে চলেছে ২০১৩ সালে. এর সর্ব্বোচ্চ উড়ানের উচ্চতা – পাঁচ হাজার মিটার অবধি. এই জেপেলিন তৈরী করা হবে চারটি শক্তিশালী টার্বো- প্রপেলার ইঞ্জিন দিয়ে.
রুশী গবেষণা কেন্দ্র ‘রোমির’ রুশবাসীদের কাছে জানতে চেয়েছে, যে যদি তারা ১০ লক্ষ ডলার লটারীতে জেতে, তাহলে কিভাবে সেই অর্থ ব্যয় করবে. ঐ জনসমীক্ষায় দেড় হাজার শহুরে ও গ্রামীন রুশবাসী অংশ নিয়েছে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে.     এক-তৃতীয়াংশ রুশবাসী লটারী জেতা অর্থ বাড়িঘর, গাড়ি ও দামী জিনিষ কেনার পেছনে খরচা করতে চায়.
আগের
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
জুন 2012
ঘটনার সূচী
জুন 2012
1
2
3
7
10
11
17
18
19
20
22
23
24
25
26
27
30