×
South Asian Languages:
মহাকাশ, নভেম্বর 2011
কাজাখস্তানের বাইকোনুর কসমোড্রোমে চীনা টেলি-কমিউনিকেশন মহাকাশ সরঞ্জাম “এশিয়া স্যাট-৭” সহ “প্রোটোন-এম” বাহক রকেটের ক্ষেপণপূর্ব প্রস্তুতি শেষ হতে চলেছে. তা ক্ষেপণ করা হবে ২৫শে নভেম্বর মস্কো সময় রাত ১১টা ৩৫ মিনিটে, “ইন্টারফাক্স” সংবাদ সংস্থাকে জানানো হয়েছে “রসকসমস” সংস্থায়.
আমুর অঞ্চলে চতুর্থ উড়ান মঞ্চ "ভস্তোচনি" মহাকাশ বন্দরে "সইউজ" মহাকাশযান এবারে যাত্রা শুরু প্রস্তুতি নেবে. ২০১৫ সালে এখান থেকে প্রথম পাইলট বিহীণ যান উড়ান শুরু করবে আর ২০১৮ সালে মহাকাশচারী নিয়ে যাত্রার শুরু হবে. সামারা শহরের "কেন্দ্রীয় নির্মাণ ও প্রকল্প ব্যুরো – প্রোগ্রেস", যারা এই ধরনের রকেট উত্পাদন করে থাকে, তাদের কর্মীরা এই প্রকল্পের বাস্তবায়নের কাজে সক্রিয় ভাবে কাজ করছেন.
ইউরোপে রকেটবিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা নির্মাণ করার মার্কিনী পরিকল্পনার কড়া সমালোচনা করেছেন রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দমিত্রি মেদভেদেভ. মেদভেদেভ ক্ষমতায় থাকাকালীন এই প্রথম রাশিয়ার সামরিক শক্তি বৃদ্ধি করার সম্প্রসারিত নক্সা প্রদর্শন করা হয়েছে.     প্রথমতঃ প্রতিরক্ষামন্ত্রককে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, যে অনতিবিলম্বে কালিনিনগ্রাদে রেডার ষ্টেশন স্থাপণ করার, যা রকেটের আক্রমণ সম্মন্ধে সতর্ক করে দিতে পারবে.
রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দিমিত্রি মেদভেদেভ ইউরোপে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো জোটের রকেট বিরোধী ব্যবস্থা তৈরীর উত্তর হিসাবে যে সমস্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে তার সম্বন্ধে বলেছেন. প্রথম পদক্ষেপ হবে অবিলম্বে কালিনিনগ্রাদের রেডিও নির্ণয় ব্যবস্থায় সামরিক অংশ জোড়া হবে, যা রকেট আঘাত সম্বন্ধে পূর্বাভাস দিতে সক্ষম.
রাশিয়া রকেট বিরোধী প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা সম্পর্কে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাথে সংলাপ চালিয়ে যেতে প্রস্তুত, এই কথা বুধবার বলেছেন রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দিমিত্রি মেদভেদেভ. তবে, মস্কোর পরবর্তী পদক্ষেপ নির্ভর করবে বাস্তব ঘটনা পরম্পরার উপরেই.
ইউরোপীয় স্টেশনগুলি মহাকাশে “হারিয়ে যাওয়া” “ফোবোস-গ্রুন্ত” নামে রাশিয়ার আন্তঃগ্রহ স্টেশন থেকে প্রথম সঙ্কেত পেয়েছে, যা পৃথিবীর নিকটবর্তী কক্ষপথে ৯ই নভেম্বর বের হওয়ার পর থেকে মৌন ছিল. এর অর্থ হল সরঞ্জামটি কাজ করছে, “ইন্টারফাক্স” সংবাদ সংস্থাকে বলেছেন রাশিয়ার রকেট-মহাকাশ ক্ষেত্রের এক উত্স.
চীন মহাকাশে ২টি গবেষনাধর্মী উপগ্রহ পাঠিয়েছে।চীনের সংবাদ সংস্থা সিনহুয়া এ খবর জানিয়েছে।চীনের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় গানচু প্রদেশের  ছিজইউআন উতক্ষেপন কেন্দ্র
তিনজন মহাকাশচারী নিয়ে “সোয়ুজ তে.এম.আ-২২” মানবচালিত মহাকাশযান আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনের রাশিয়ার অংশের “পোইস্ক” মোডুলের সাথে যুক্ত হয়েছে. স্টেশনের সাথে মহাকাশযানের যুক্ত হওয়ার ঘটনাটি মস্কোর উপকন্ঠে মহাকাশযাত্রা পরিচালনা কেন্দ্রের স্টেশন পরিচালনার হলের মুখ্য পর্দায় দেখানো হয়েছে.
পাল তোলা নৌকা ডেলটা বিশ্ব পরিক্রমার ইউরোপীয় অংশ সমাপ্ত করেছে. পিছনে রয়ে গিয়েছে পুরাতন বিশ্বের বারোটি দেশ, বাল্টিক ও উত্তর সাগর, ইংলিশ চ্যানেল ও বিস্কে উপসাগর. সামনে - অতলান্তিক মহাসমুদ্র. রুশ নাবিকেরা তিন বছরেরও কম সময়ে আশা করেছেন বিশ্ব পরিক্রমা শেষ করার.
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ঠিক করেছে চিনকে সামরিক ভাবে বেঁধে রাখার চেষ্টা করতে. রুশ বিশেষজ্ঞরা পেন্টাগনে চিনের বিরুদ্ধে প্রতিক্রিয়া করার বিশেষ দপ্তর খোলাকে এই ভাবেই দেখছেন. এই দপ্তরের লক্ষ্য – চিনের উপরে সমুদ্র ও আকাশ পথে আঘাত হানার পরিকল্পনা করা, মহাকাশে ও সাইবার ক্ষেত্রে আঘাত করা ও চিনের উপগ্রহ বিরোধী ও যুদ্ধ জাহাজ বিরোধী রকেট আটকে দেওয়া.
   আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশন অতিথিদের অপেক্ষায় রয়েছে. বাইকোনুর কসমোড্রোম থেকে সোয়ুজ মহাকাশযানে সপলভাবে যাত্রা করেছে পরবর্তী কর্মীদল. এ দলে রয়েছেন দুজন রাশিয়ার এবং একজন মার্কিনী মহাকাশচারী.    রাশিয়ার বৈমানিক – কর্নেল আন্তোন শ্কাপলেরোভ এবং লেফটেনেন্ট কর্নেল আনাতোলি ইভানিশিনের জন্য এটি হল প্রথম মহাকাশযাত্রা.
রাশিয়া বিশ্ব সমাজের কাছে প্রস্তাব করেছে বিশ্ব তথ্য নিরাপত্তা রীতিনীতি গ্রহণ করার. মস্কো নিজের উদ্যোগ সাইবার এলাকা নিয়ে আন্তর্জাতিক সম্মেলনে প্রস্তাব করতে যাচ্ছে. এই ধরনের প্রথম আলোচনা সভা হতে চলেছে লন্ডনে. বিশ্বের ৬০টি দেশ থেকে গ্রেট ব্রিটেনের রাজধানীতে এসেছেন সাতশোরও বেশী প্রতিনিধি.     এই সম্মেলনের উদ্যোক্তা গ্রেট ব্রিটেনের পররাষ্ট্র দপ্তর.
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
নভেম্বর 2011
ঘটনার সূচী
নভেম্বর 2011
1
3
4
5
6
7
8
9
10
11
12
13
17
18
19
21
22
26
27
28
29
30