×
South Asian Languages:
মহাকাশ, আগষ্ট 2011
সাইবেরিয়ার দক্ষিণাঞ্চলে পাহাড়ী আলতাইয়ে মালবাহী “প্রোগ্রেস” মহাকাশযানের অনুমিত পড়ার জায়গায় নেওয়া মাটির নমুনায় বিষাক্তকরণ প্রকটিত হয় নি. বিপর্যয় নিরসন মন্ত্রণালয়ে জানানো হয়েছে যে, নমুনা গ্রহণ করা হয় তিনটি নদী এবং মাটি থেকে. তেজষ্ক্রিয়তার মান স্বাভাবিক রয়েছে. আজ আবার নমুনা গ্রহণ করা হবে.
মস্কো উপকণ্ঠের ঝুকভস্কি শহরে সদ্য শেষ হওয়া "ম্যাক্স – ২০১১" বিমান মহাকাশ প্রযুক্তি প্রদর্শনীতে রাশিয়ার "সুখই অসামরিক বিমান নির্মাণ" কোম্পানী ১০০ ও বেশী বিমান সরবরাহ করার চুক্তি করেছে. এই সমস্ত চুক্তির মোট অর্থ মূল্য তিনশো কোটি ডলারেরও বেশী.
"রেডিও রাশিয়াকে" দেওয়া এক সাক্ষাত্কারে বৈজ্ঞানিক উত্পাদন জোট যন্ত্র নির্মাণ (এন পে ও "মাশিনোস্ত্রইয়েনিয়া") কোম্পানীর জেনেরাল ডিরেক্টরের সহকারী আন্তন দেগতিয়ারেভ জানিয়েছেন যে, বর্তমানে রুশ ভারত রকেট "ব্রামোস" ডুবোজাহাজের জলের গভীর থেকে ছোঁড়ার পরীক্ষার বিষয়ে প্রস্তুতি চলছে.     জাহাজ বিরোধী ডানা ওয়ালা রকেট "ব্রামোস" হল "ব্রামোস এরোস্পেস" নামের যৌথ মালিকানা কোম্পানীর উত্পাদন.
মস্কো উপকণ্ঠের ঝুকভস্কি শহরে দশম জয়ন্তী বর্ষের ম্যাক্স – ২০১১ বিমান – মহাকাশ প্রদর্শনী শুরু হয়েছে. সমস্ত দিক থেকেই, তার মধ্যে প্রথম প্রদর্শনীও রয়েছে, ম্যাক্স – ২০১১ রেকর্ড করার আশ্বাস দিয়েছে. এই বছরে ২০০ টিরও বেশী বিমান, হেলিকপ্টার ও অন্যান্য উড়ানের যন্ত্র দেখানো হয়েছে. তাদের মধ্যে একশো টিরও বেশী দর্শকেরা প্রথমবার দেখতে পাবেন.
মস্কো উপকণ্ঠের ঝুকভস্কি শহরে চলা মহাকাশ ও বিমান প্রযুক্তি প্রদর্শনী ম্যাক্স – ২০১১ তে এবারে আগের চেয়ে অনেক বেশী সামরিক যুদ্ধ বিমান দেখানো হয়েছে. এটা শুধু বর্তমানের সামরিক বিমান বাহিনীতে কার্যরত যুদ্ধের প্রথম সারির ফাইটার বা বোমা ফেলার বিমানই নয়, বরং সেই সমস্ত বিমানের উদাহরণ, যে গুলি আগামীতে রাশিয়ার সামরিক বিমান বাহিনীতে থাকবে.
রাশিয়া বিমান নির্মাণ শিল্পের একত্রীকরণ সম্পূর্ণ করেছে ও বর্তমানে খতিয়ে দেখছে বিমান মহাকাশ শিল্পকে নিজেদের উন্নতির প্রাথমিক বিষয় হিসাবে. এই বিষয়ে ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী ভ্লাদিমির পুতিন দশম আন্তর্জাতিক বিমান মহাকাশ প্রদর্শনী ম্যাক্স – ২০১১ দেখতে এসে ঝুকভস্কি শহরে.
মস্কো উপকণ্ঠের শহর ঝুকভস্কি তে শুরু হওয়া আন্তর্জাতিক বিমান ও মহাকাশ প্রযুক্তি প্রদর্শনী ম্যাক্স – ২০১১ তে এর মধ্যেই বেশ কয়েকটি বড় চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে. এই প্রদর্শনী শুরু হওয়ার আগেই বিশেষজ্ঞরা অনুমান করেছিলেন যে, তার সম্ভাব্য পরিমান অর্থ মূল্যে প্রায় তিনশো কোটি ডলার ছাড়াবে. মনে হচ্ছে এই সংখ্যা পেরোবে.
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের গুপ্তচর সংস্থা তাদের অনুমানে কিছু ভুল করে নি. মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের যেমন ভয় পাওয়া হয়েছিল যে, তেমন করেই পাকিস্তান তাদের দেশে ওসামা বেন লাদেনকে ধ্বংস করার অপারেশনে ক্ষতিগ্রস্থ মার্কিন হেলিকপ্টারটিকে চিনের জন্য খুলে দিয়েছে দেখতে. ওয়াশিংটনের একাধিকবার এটা করতে বারণ করায় কান দেয় নি ইসলামাবাদ.
আজ মস্কো উপকণ্ঠের ঝুকভস্কি শহরে দশম জয়ন্তী বর্ষের ম্যাক্স – ২০১১ বিমান – মহাকাশ প্রদর্শনী শুরু হতে চলেছে. সমস্ত দিক থেকেই, তার মধ্যে প্রথম প্রদর্শনীও রয়েছে, ম্যাক্স – ২০১১ রেকর্ড করার আশ্বাস দিয়েছে. এই বছরে ২০০ টিরও বেশী বিমান, হেলিকপ্টার ও অন্যান্য উড়ানের যন্ত্র দেখানো হচ্ছে. তাদের মধ্যে একশো টিরও বেশী দর্শকেরা প্রথমবার দেখতে পাবেন.
আন্তর্জাতিক বিমান প্রদর্শনী ম্যাক্স – ২০১১ আজ থেকে রাশিয়াতে শুরু হচ্ছে. বিমান প্রদর্শনী রাশিয়ার বিমান নির্মাণ কেন্দ্র মস্কো উপকণ্ঠের শহর ঝুকভস্কি তে চলবে ১৬ থেকে ২১ শে আগষ্ট এই প্রদর্শনীতে অংশ নিচ্ছেন বিশ্বের সমস্ত নেতৃস্থানীয় বিমান নির্মাণ কোম্পানী. প্রদর্শনীর আহ্বায়কেরা আশা করছেন যে, এখানে প্রায় তিনশো কোটি ডলার অর্থ মূল্যের চুক্তি স্বাক্ষরিত হতে পারে, জানিয়েছে ইন্টারফ্যাক্স সংস্থা.
এই বছরের শেষে ২৫ – ৩০ টি কোম্পানী "স্কোলকোভা" উদ্ভাবনী প্রযুক্তি কেন্দ্রের পারমানবিক ক্লাস্টারের অংশীদার হওয়ার মর্যাদা পেতে চলেছে. এদের মধ্যে একাংশ, যাদের প্রকল্প সবচেয়ে বেশী আগ্রহজনক হতে পারবে, তারা তহবিলের কাছ থেকে গ্র্যান্ট পেতে পারে. এই বিষয়ে রেডিও রাশিয়াকে দেওয়া এক একান্ত সাক্ষাত্কারে পারমানবিক ক্লাস্টারের ডিরেক্টর দেনিস কভালিয়েভিচ বিশদ করে বলেছেন.
"সিনহুয়া" সংবাদ সংস্থা যেমন জানিয়েছে যে, শুক্রবার ভোর রাতে চিনের দক্ষিণ- পশ্চিমে সিচুয়ান রাজ্যের সিচান মহাকাশ উড়ান কেন্দ্র থেকে পাকিস্তানের "পাকস্যাট- ১ আর" উপগ্রহ সফল ভাবে মহাকাশে পাঠানো সম্ভব হয়েছে.     ২০০৮ সালে এই উপগ্রহ পাঠানোর চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছিল চিনের কর্পোরেশন "মহান প্রাচীর" ও পাকিস্তানের মহাকাশ ও বায়ুমণ্ডলের সর্ব্বোচ্চ স্তরের গবেষণা সংস্থার মধ্যে.
  পাকিস্তানের টেলিকম্যুনিকেশন স্যাটেলাইট PAKSAT-1R চীনের সিচুয়ান প্রদেশে অবস্থিত সিচান মহাকাশকেন্দ্র থেকে গতরাতে মহাকাশে উত্ক্ষিপ্ত হয়েছে. মহান অভিযান-৩বি নামক রকেট বাহক গতরাতে স্থানীয় সময় ০-১৫ মিনিটে উত্ক্ষেপ করা হয় বলে সিনহুয়া সংবাদসংস্থা জানিয়েছে. সিনহুয়া আরো জানিয়েছে, যে ভূমিত্যাগ করবার ২৬ মিনিট পরে স্যাটেলাইটটি রকেট বাহকের থেকে সফলভাবে আলাদা হয়ে কক্ষপথে পৌঁছায়.
বছরের গরম কালে মঙ্গল গ্রহের পিঠে নোনা জলের স্রোত বয়ে যেতে পারে বলে মনে করেছেন নাসা সংস্থার বিজ্ঞানীরা. মঙ্গল পৃষ্ঠের ছবি থেকে পাহাড়ের ঢালে অন্ধকার জায়গা দেখতে পাওয়া গিয়েছে, যা বসন্ত ও গ্রীষ্ম কালে আয়তনে বড় হয় ও শীতকালে হারিয়ে যায়.
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30 31
আগষ্ট 2011
ঘটনার সূচী
আগষ্ট 2011
1
2
3
4
6
7
8
9
10
11
13
14
20
21
24
25
26
27
28
30
31