×
South Asian Languages:
কোরিয়া, 5 এপ্রিল 2013
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র সচিব জন কেরি এ সপ্তাহের শেষে ও আগামী সপ্তাহের গোড়ায় ইস্রাইলী ও প্যালেস্টাইনী নেতৃবৃন্দের সাথে সাক্ষাত্ করবেন. কেরি ৭-৯ই এপ্রিল জেরুসেলাম ও রামাল্লা সফর করবেন. জেরুসেলামে তিনি সাক্ষাত্ করবেন ইস্রাইলের নেতৃবৃন্দের সাথে, আর রামাল্লায় – প্যালেস্টাইনী নেতৃবৃন্দের সাথে, শুক্রবার জানিয়েছে মার্কিনী পররাষ্ট্র বিভাগ.
দক্ষিণ কোরিয়ার সামরিক কর্মচারীদের সূত্র ধরে ‘ইওনহাপ’ সংবাদসংস্থা জানিয়েছে, যে উত্তর কোরিয়া তার পূর্ব উপকূলে দ্বিতীয় মাঝারিপাল্লার ব্যালেস্টিক রকেট মোতায়েন করেছে. সূত্রটির তথ্য অনুযায়ী, রকেটদুটি পরিবহনযোগ্য নিক্ষেপযন্ত্রে বসানো রয়েছে এবং তাদের এমন একটা জায়গায় লুকানো হয়েছে, যার উদ্দেশ্যর হদিশ পাওয়া যায়নি. দক্ষিণ কোরিয়ার সূত্রদের কথায়, ‘মুসুদান’ মার্কা রকেটের লক্ষ্যভেদের পাল্লা ৩ হাজার কিলোমিটার ও তার বেশি.
উত্তর কোরিয়ার পূর্ব উপকূলে মাঝারি পাল্লার রকেট “মুসুদান”বসানোর খবর, যা আমেরিকা ও দক্ষিণ কোরিয়ার উত্স থেকে দেওয়া হয়েছে, তা কোরিয়া উপদ্বীপ এলাকা জুড়ে এক নতুন উত্তেজনার অধ্যায়ের সূচনা করেছে.
দক্ষিণ কোরিয়া শুক্রবার জাপানের কাছে সরকারী প্রতিবাদ জানিয়েছে জাপান সাগরে তোকতো (তাকেসিমা) দ্বীপকে কেন্দ্র করে ভূভাগীয় বিতর্ক উপলক্ষে, শুক্রবার জানিয়েছে স্থানীয় প্রচার মাধ্যম. উপলক্ষ ছিল জাপানে প্রকাশিত পররাষ্ট্রনীতি সংক্রান্ত বার্ষিক রিপোর্ট, যাতে এ দ্বীপপুঞ্জকে জাপানের ভূভাগ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে.
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদেশগুলির উপর উত্তর কোরিয়ার তরফ থেকে পারমাণবিক আঘাত হানার হুমকির পরিবেশে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সাবধানতার ব্যবস্থা গ্রহণ করছে, বলেছেন হোয়াইট হাউজের প্রেস-সেক্রেটারি জে কারনি. তিনি উল্লেখ করেন যে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র উত্তর কোরিয়ার নেতৃবৃন্দের ক্রিয়াকলাপ ও বিবৃতির প্রতি সমনোযোগে লক্ষ্য রাখছে.
জাপান সরকার একপাক্ষিকভাবে উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে বাধানিষেধ দুই বছর বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে. ঐ বাধানিষেধের মেয়াদ শেষ হতে চলেছিল ১৩ই এপ্রিল. ২০০৬ সালে আরোপিত ঐ বাধানিষেধের আওতায় উত্তর কোরিয়া থেকে যে কোনোরকম পণ্য আমদানী নিষিদ্ধ এবং উত্তর কোরিয়ায় পণ্য রপ্তানীর উপরও কঠোর নিয়ন্ত্রণ জারি করা আছে.
জাতিসংঘের সাধারণ সম্পাদক বান কি মুন উত্তর কোরিয়ার প্রতি পারমানবিক হুমকি ও যুদ্ধোন্মাদ কথাবার্তা থেকে বিরত হওয়ার আহ্বাণ জানিয়েছেন এবং জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের ঘোষনাপত্র মেনে চলার পরামর্শ দিয়েছেন. বান কি মুন কোরিয় উপদ্বীপে উত্তেজনার চরম বৃদ্ধিতে উদ্বিগ্নতা প্রকাশ করেছেন. এর প্রধান কারণ হচ্ছে উত্তর কোরিয়ার তরফ থেকে যুদ্ধোন্মাদ কথাবার্তা.
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
এপ্রিল 2013
ঘটনার সূচী
এপ্রিল 2013
21
22
25
26
27
28