×
South Asian Languages:
রাশিয়া- ভারত

২০১৩ সালের ২৬শে ডিসেম্বর আর্থিক বিনিয়োগের বিষয়ে রদবদল, “রেডিও রাশিয়া” নামের কোম্পানীর কাজ শেষ করা ও “রিয়া-নোভস্তি” নামের সংবাদ সংস্থার সঙ্গে মিশিয়ে দেওয়া হচ্ছে বলে বাংলা ভাষায় রেডিও রাশিয়ার সাইট বন্ধ করা হচ্ছে.

রাশিয়ার সঙ্গে মৈত্রী ও সহযোগিতার ক্ষেত্রে বিশাল অবদান রাখার জন্য ও বিজ্ঞান, সংস্কৃতি ও সক্রিয় ভাবে সমাজসেবা করার জন্য তিন প্রখ্যাত ভারতীয় নাগরিককে মৈত্রী পদক দিয়ে সম্মানিত করেছে রাশিয়া. এই সংক্রান্ত নির্দেশ রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন ৬ই ডিসেম্বর স্বাক্ষর করেছেন. মৈত্রী পদক প্রাপ্ত ব্যক্তিরা হলেন ভারতীয় লোকসভার সদস্য মুরলী মনোহর যোশী, যৌথ রুশ-ভারত সংস্থা ব্রামোস এয়ারো স্পেসের কর্তা এ. এস. পিল্লাই ও পুশকিন পদক দিয়ে সম্মানিত করা হয়েছে আন্তর্জাতিক ভারতীয় সংস্কৃতি কেন্দ্রের ডিরেক্টর লোকেশ চন্দ্রকে.

ভারতের রাজধানী দিল্লিতে আজ থেকে রেডিও রাশিয়ার ৮ম সর্বভারতীয় শ্রোতা সম্মেলন শুরু হয়েছে। দিল্লির রুশ বিজ্ঞান ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে শুরু হওয়ার দুই দিনব্যাপী সম্মেলনের প্রথম দিনে ভারতজুড়ে রেডিও রাশিয়ার শ্রোতা ক্লাবের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

মস্কোস্থিত ভারতীয় সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে স্বামী বিবেকানন্দের স্মৃতিমূর্তির উপস্থাপনা করা হল. ভাস্কর গ্রিগোরি পতোত্স্কি তার সৃজন তুলেদিলেন ভারতীয় পক্ষের হাতে. আমরা গ্রিগোরি পতোত্স্কির কাছে জিজ্ঞাসা করলাম, যে কিভাবে ও কোন উপলক্ষ্যে এই স্মৃতিমূর্তি সৃষ্টি করার ধারণা মাথায় এলো ? 

ভারতের কুদানকুলাম পারমাণবিক বিদ্যুতকেন্দ্রের চেয়ে অল্প দূরের এক গ্রাম ইদিনথাকারাই, সেখানে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বোমা বিস্ফোরণের ফলে ছ’জন নিহত হয়েছে, তার মধ্যে তিনটি শিশুও ছিল. কিন্তু এই বিস্ফোরণের প্রতিধ্বনি তামিলনাডু রাজ্যের বাইরে বহু দূরেও শুনতে পাওয়া গিয়েছে. আবারও আলোচ্যের তালিকায় উঠে এসেছে খুবই জটিল সমস্ত বিষয়, যা এই কুদানকুলাম পারমাণবিক বিদ্যুতকেন্দ্রের নিরাপত্তা নিয়ে শুরু হয়েছে, আর তারই সঙ্গে যোগ হয়েছে ভারতের পারমাণবিক শক্তি প্রকল্পগুলোর ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তা আর অংশতঃ রুশ-ভারত পারমাণবিক সহযোগিতা নিয়েও. দেখাই যাচ্ছে যে, কেউ একজনের খুব একটা ইচ্ছা হয়েছে বহু বছর ধরে গড়ে ওঠা রুশ-ভারত মৈত্রী বন্ধনকে এই ক্ষেত্রে একেবারে বোমা মেরে ধ্বংস করে দেওয়ার.

বিমানবাহী জাহাজ “অ্যাডমিরাল গর্শকভ” আধুনিকীকরণ ও হস্তান্তর করা নিয়ে ইতিহাস, যা বর্তমানে পরিবর্তিত হয়ে “বিক্রমাদিত্য” নাম হয়েছে, তা আমাদের বাধ্য করেছে রুশ প্রবাদ মনে করতে: “(পথনির্দেশ, মানচিত্র) কাগজ কলমে তো সবই মসৃণ ছিল, শুধু ভুলে গিয়েছিল খাদের কথা”. বাস্তবে যখন ২০০৪ সালে দুই পক্ষ “অ্যাডমিরাল গর্শকভ” নিয়ে চুক্তি স্বাক্ষর করেছিল. তখন বোধহয়, যেমন মস্কো শহরে, তেমনই দিল্লীতেও কেউই মনে করতে পারেন নি যে, এই আধুনিকীকরণের কাজের জন্য সময় লাগতে পারে দশ বছর. আর শুধু চুক্তির মেয়াদ লঙ্ঘণ ছাড়াও দুই দেশের সম্পর্কও এক দীর্ঘ সময়ের জন্য মলিন হয়েছিল অর্থ যোগানের অভাবে, চুক্তির মূল্য বৃদ্ধির কারণে আর বাড়তি পরিকল্পনার বাইরের কাজের জন্য.

ভারতের সেনাবাহিনী সোমবার রাজস্থান প্রদেশের চাঁদমারিতে রাশিয়ার সাথে মিলিতভাবে তৈরী সুপারসোনিক “ব্রামোস” ক্রুইজ মিসাইলের স্থলে স্থাপনের উন্নত ধরণ সফলভাবে পরীক্ষা করেছে. 

রাশিয়া ও ভারতের সামরিক প্রযুক্তি কমিশনের বৈঠক কাল মস্কোতে শুরু হচ্ছে। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রনালয় এ খবর জানিয়েছে। রাশিয়া ও ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী সেরগেই সাইগু ও এ কে অ্যান্টনি বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন।

রাশিয়া ভারতকে বিমানবাহী জাহাজ “বিক্রমাদিত্য” হস্তান্তর করেছে, এই কারণে সমারোহ হয়েছে সিয়েভেরোদ্ভিনস্ক শহরের “সেভমাশ” কারখানায়, যেখানে এই জাহাজকে আধুনিকীকরণ করা সম্পন্ন হয়েছে. ৩০শে নভেম্বর বিক্রমাদিত্য রাশিয়ার জলসীমা ছাড়িয়ে মুম্বাই শহরের দিকে রওয়ানা হবে.

সামরিক প্রযুক্তি সহযোগিতার ক্ষেত্রে ভারত রাশিয়ার জন্য প্রথম সহকর্মী দেশ হয়েই রয়েছে, যদিও বিগত সময়ে রাশিয়ার কোম্পানীগুলি একসারি সামরিক টেন্ডারে জয়লাভ করতে ভারতে অসমর্থ হয়েছে. এই বিষয়ে শুক্রবারে “ইন্টারফ্যাক্স” সংবাদ সংস্থাকে একটি রাশিয়ার দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে, যারা সামরিক রপ্তানীর বিষয়ে কাজ করে. প্রতিনিধির কথামতো, আসন্ন সময়ে পরিকল্পনা রয়েছে ভারতের সঙ্গে একসারি নতুন চুক্তি স্বাক্ষর করার.

বিশ্বের ৩৬টি দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা এবার এশিয়া-ইউরোপ মিটিং ফোরামে(এএসইএম)যোগ দিবেন। আগামীকাল থেকে ভারতের দিল্লিতে দুইদিনব্যাপী এই ফোরাম শুরু হচ্ছে। ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রনালয় রোববার এক বিবৃতিতে এ খবর জানিয়েছে।

“এশিয়া- ইউরোপ সাক্ষাত্কার” অথবা আসেম গোষ্ঠীর অংশীদার রাষ্ট্রগুলোর ১১ই নভেম্বরের বৈঠকের আগে রাশিয়া, ভারত ও চিন নিজেদের “ঘড়ি মিলিয়ে নিচ্ছে”. এর আগে তিন দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা দিল্লী শহরে দেখা করতে যাচ্ছেন.

দিল্লিতে ১০ই নভেম্বর রাশিয়া, চীন ও ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। সেরগেই ল্যাভারভ, ওয়ান লি ও সালমান খুরশিদ নিজ নিজ দেশের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিবেন। রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রনালয়ের মূখপাত্র আলেক্সান্দার লুকাশেভিচ শুক্রবার এক বিবৃতিতে এ কথা জানিয়েছেন।

রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার কাদাকিন: রোয়েরিখদের ঐতিহ্য সংরক্ষণে রাশিয়া ও ভারত নিজেদের সহযোগিতার স্তর বৃদ্ধি করতে চেয়েছে.

“রেডিও রাশিয়াকে” দেওয়া এক একান্ত সাক্ষাত্কারে ভারতে স্থিত রুশ রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ডার কাদাকিন ঘোষণা করেছেন যে, “রাশিয়া ও ভারত চেয়েছে অনেকটাই দ্বিপাক্ষিক স্তরে সহযোগিতাকে বৃদ্ধি করতে, যাতে রোয়েরিখদের ঐতিহ্যকে সম্যক ভাবে সংরক্ষণ করা সম্ভব হয়. এখানে নীতিগত ভাবে গুরুত্বপূর্ণ হল যে, দুই পক্ষই সবচেয়ে উচ্চ স্তরে স্বীকার করেছে পারস্পরিক ভাবে এই লক্ষ্যে কাজ করার. এই ধরনের বোঝাপড়া আগামী ২০১৪ সালে দুটি স্মৃতি বিজড়িত ঘটনার প্রস্তুতি নেওয়ার জন্য ভাল পরিবেশ সৃষ্টি করেছে – নিকোলাই রোয়েরিখের ১৪০তম ও স্ভিয়াতোস্লাভ রোয়েরিখের ১১০তম জন্ম দিবস পালন” – উল্লেখ করেছেন রাষ্ট্রদূত.

রাশিয়া থেকে বর্তমানের ভারতীয় রাষ্ট্রদূত অজয় মলহোত্র ফিরে যাচ্ছেন. তাঁর জায়গায় আসছেন পি এস রাঘবন. এই কথা জানানো হয়েছে ভারতের পররাষ্ট্র দপ্তর থেকে.

ভারতের প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহের চিন সফরের সময়ে যখন তার চিনের নেতৃত্বের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক আর্থ-বাণিজ্য উন্নতির বিষয়ে ও সীমান্ত সংক্রান্ত প্রশ্নের বিষয়ে স্বাভাবিক করার কথা হয়েছে, তখনই প্রায় একই সময়ে ফিলিপাইনসে গিয়েছিলেন ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রী সলমন খুরশিদ. দক্ষিণ চিন সাগরের পরিস্থিতি ও বিতর্কিত দ্বীপ গুলি নিয়ে মন্ত্রীর বক্তব্য থেকে ধারণা করা যেতে পারে যে, নয়া দিল্লী বর্তমানে এক জটিল খেলায় নেমেছে. নিজেদের বেজিংয়ের সঙ্গে একেবারেই অসহজ পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে এই খেলা শুরু হয়েছে বলেই মনে করেছেন রুশ বিজ্ঞান একাডেমীর সুদূর প্রাচ্য ইনস্টিটিউটের ডেপুটি ডিরেক্টর সের্গেই লুজিয়ানিন.

মস্কোয় রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন এবং ভারতের প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের আলাপ-আলোচনার ভিত্তিতে একসারি দলিল স্বাক্ষরিত হয়েছে.

শুরু করছি আমাদের নিয়মিত কথ্য রুশী ভাষা শেখার ক্লাস.

প্রিয় শ্রোতারা! আসুন সামিল হোন আমাদের ভাষা পাঠের ক্লাসে.

ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং তিনদিনের রাষ্ট্রীয় সফরে আজ রোববার মস্কো এসেছেন। সোমবার রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সাথে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে মিলিত হবেন তিনি।

২০-২২শে অক্টোবর ভারতের প্রধানমন্ত্রী ডঃ মনমোহন সিং রাষ্ট্রীয় সফরে মস্কোয় থাকবেন.

আগের
1 2 3 4 5 6 7 8 9 10 11 12 13 14 15 16 17 18 19 20 21 22 23 24 25 26 27 28 29 30
নভেম্বর 2017
ঘটনার সূচী
নভেম্বর 2017
1
2
3
4
5
6
7
8
9
10
11
12
13
14
15
16
17
18
19
20
21
22
23
24
25
26
27
28
29
30