আগে বিষাক্ত বস্তু ধ্বংস করার এ কর্মসূচিতে যোগ দিয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, ডেনমার্ক ও নরওয়ে. বৃটিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ঘোষণা করেছে যে, ১৫০ টন রাসায়নিক যৌগিক সিরিয়া থেকে সমুদ্র পথে বৃটেনের একটি বন্দরে আনা হবে. সিরিয়ার কর্তৃপক্ষের তথ্য অনুযায়ী, রাসায়নিক অস্ত্রের মোট পরিমাণ ১৩০০ টন, যার বেশির ভাগ প্রয়োজনীয় অন্য বস্তুতে পরিণত করার কথা এ বছর শেষ হওয়ার আগে. নভেম্বরের শেষে রাসায়নিক অস্ত্র নিষেধ সংস্থা জানিয়েছিল যে, সিরিয়ার বিষাক্ত বস্তুর ভাণ্ডারের একাংশ নিষ্ক্রিয় করা হবে মার্কিনী সামরিক জাহাজে. রাসায়নিক অস্ত্র নিষেধ সংস্থা নিশ্চয়োক্তি করছে যে, সিরিয়ার রাসায়নিক বস্তুর ভাণ্ডারের বাকি অংশ ধ্বংস করার আগ্রহ প্রকাশ করেছে ৩৫টি কোম্পানি.