উত্তর কোরিয়ার জাতীয় প্রতিরক্ষা কমিটি বৃহস্পতিবার এ সতর্ক-বার্তা পাঠিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের কাছে হট-লাইনে, জানিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রচার মাধ্যম. দক্ষিণ কোরিয়ার একদল সক্রিয় কর্মী এবং উত্তর কোরিয়া থেকে পালানো ব্যক্তিরা ১৭ই ডিসেম্বর, কিম চেন ইর-এর মৃত্যু-বার্ষিকীর দিন কমিউনিস্ট রাষ্ট্রে স্বৈরতান্ত্রিক শাসন ও মানব অধিকার লঙ্ঘনের বিরুদ্ধে সেওলে প্রতিবাদ সভা পরিচালনার পর. সক্রিয় কর্মীদের এ আন্দোলনের সময় উত্তর কোরিয়ার বর্তমান নেতা কিম চেন ঈন-এর ফোটো পোড়ানো হয়.