এ সম্বন্ধে “রিয়া নোভস্তি” সংবাদ এজেন্সিকে জানিয়েছেন এ ক্ষেত্রের ওয়াকিবহাল এক উত্স. বিদ্যুত্শক্তির চাপ ছিল ৪২০ মেগাওয়াট. সেই উত্স উল্লেখ করেন যে, কাজ চালানো হচ্ছে নিয়মানুবর্তিক ভাবে, ভারতের পর্যবেক্ষণকারী সংস্থার কঠোর নিয়ন্ত্রণে. এ ব্লক-কে বিদ্যুত্শক্তির জালে প্রথম যুক্ত করা হয় ২২শে অক্টোবর. বর্তমানে বিশেষজ্ঞরা পর্যায়নুক্রমিক ভাবে এনার্জি-ব্লক চালু করছেন. ১০০ শতাংশ ক্ষমতায় তাকে আনা হবে সমস্ত ব্যবস্থা ও সাজ-সরঞ্জামের কর্মক্ষমতা পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে পরীক্ষার পর. রাশিয়ার প্রযুক্তিগত সহযোগিতায় এই “কুদানকুলাম” পারমাণবিক বিদ্যুত্ কেন্দ্র নির্মিত হচ্ছে. এর ফরমাশদাতা এবং অপারেটর হল ভারতের পারমাণবিক বিদ্যুত্শক্তি কর্পোরেশন. দ্বিতীয় ব্লকের নির্মাণ এখন শেষ পর্যায়ে রয়েছে.