প্রতিবাদকারীরা রাষ্ট্রপতির প্রশাসনের ভবনের কাছে প্ল্যাকার্ড লাগিয়েছে. কর্তৃপক্ষের প্রতিনিধিরা ইতিমধ্যে বলেছে যে, কর্মীরা সোমবার যাই হোক না কেন কাজে আসবে. এদিকে মিলিশিয়া ফৌজদারী মামলা দায়ের করেছে ব্যাপক বিশৃঙ্খলার জন্য লেনিনের স্মৃতিমূর্তি ভাঙ্গার সময়, যা শহরের একটি প্রতীক ছিল এবং ইউনেস্কোর বিশ্ব উত্তরাধিকার তালিকার অন্তর্ভুক্ত ছিল. এর প্রাক্কালে রাতে “স্ভবোদা” (মুক্তি) নামে রাডিক্যাল-জাতীয়তাবাদী পার্টির সক্রিয় কর্মীরা দড়ি বেঁধে টেনে গ্রানাইট পাথরের ভাস্কর্য মূর্তি বেদী থেকে ফেলে দেয়. তারপর তা বড় হাতুড়ি মেরে টুকরো টুকরো করে ফেলে. ইউরো-সঙ্গতির বিরোধীরাও নিজেদের অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে. তারা সর্বোচ্চ রাদা ভবনের কাছে সমবেত হয়. খার্কোভে, দনেতস্কে ও ওদেসায় ইয়ানুকোভিচের পক্ষসমর্থকরা দেশে রাজনৈতিক পরিস্থিতি স্থিতিশীল করার জন্য কেন্দ্র গঠন করেছে.