এটি অনুপম একটি প্রকল্প, যাতে এই প্রথম মিলিত করা হয়েছে বাষ্প-টার্বাইন ও গ্যাস-টার্বাইন প্রকৌশল. এর পর সোচি শহরে শীতকালীন অলিম্পিক ক্রীড়ার প্রতি উত্সর্গীত ডাকটিকিটে ছাপ দেওয়ার সমারোহ হয়. এর পরে রুশ-আর্মেনীয় আন্তঃআঞ্চলিক সম্মেলনের বৈঠক হবে. তাতে এই প্রথম এ দুই দেশের রাষ্ট্রপতিরা অংশগ্রহণ করবেন. এ সম্মেলনের একটি মুখ্য ঘটনা – আর্মেনিয়ার শুল্ক সঙ্ঘ এবং ইউরেশীয় অর্থনৈতিক এলাকায় যোগদান. আন্তঃআঞ্চলিক সহযোগিতায় আকর্ষণ করা হচ্ছে আর্মেনিয়ার সমস্ত জেলাকে এবং রাশিয়ার ৭০টি অঞ্চলকে. এ সম্মেলনে অংশগ্রহণ করবে ৬০০ জনেরও বেশি লোক. পুতিন স্পিতাক ভূমিকম্পে নিহতদের স্মরণিকে পুষ্পমাল্য অর্পণ করবেন, আর তারপর যাবেন রাশিয়ার সামরিক ঘাঁটি গিউম্রি-তে. তারপর দু দেশের নেতা ভ্লাদিমির পুতিন এবং সের্ঝ সার্গসিয়ানের আলাপ-আলোচনা হবে, তারপর একসারি যৌথ দলিল স্বাক্ষরিত হবে.