রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সেরগেই ল্যাভরোভ বলেন, চুক্তি অনুযায়ি ইরান আগামী ছয়মাস নিজেদের পরমাণু কর্মসূচী সম্পূর্ণরুপে স্থগিত করে রাখবে এবং আরাক শহরে যে বিশাল পানির জলাধার রয়েছে যা কিনা পারমাণবিক শক্তি উৎপাদনে ব্যবহার করা হয় সেটিও আপাতত বন্ধ রাখতে হবে। ইরানের প্রতিটি পরমাণু প্রকল্প যা বর্তমানে আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি সংস্থার(আইএইএ) পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রয়েছে তা আগামী ছয়মাস ওই সংস্থার অধীনে বহাল থাকবে। এর এটি উভয় পক্ষের মধ্যে একটি আস্থা তৈরী করবে বলে উল্লেখ করেছেন ল্যাভরোভ।

তবে শান্তিপূর্ণ কাজে তেহরানকে ইউরিনিয়াম সমৃদ্ধকরনের অনুমতি দিয়েছে ছয় জাতি। এক্ষেত্রে আইএইএ’র প্রস্তাবিত পরিকল্পনা মেনে ইরানের পরমাণু প্রকল্পের কাজ বাস্তাবায়ন করতে হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা চুক্তিটিকে স্বাগত জানিয়ে বলেছেন, এটি ইরানকে নিউক্লিয়ার অস্ত্র তৈরি থেকে বিরত রাখবে।

উল্লেখ্য, ইরানের পারমাণবিক কর্মসূচি নিয়ে গত বুধবার জেনেভায় আলোচনা শুরু হয়। আলোচনার পঞ্চম দিনে তেহরান ও অপর ছয়টি দেশ সমঝোতায় পৌঁছেছে।