জ্বালানি ও পানি সম্পদ ব্যবহারের নতুন উত্স ও সংস্কার নিয়ে আলোচনা করবেন। একাই সাথে প্রাকৃতিক দূর্যোগ মোকাবেলা ও খাদ্য নিরাপত্তা খাতে দক্ষ মানবসম্পদ গড়ে তোলার বিষয় নিয়ে পারস্পরিক সহযোগিতার সম্ভাবনা নিয়ে আলোচনা করা হবে।

উল্লেখ্য, ফ্রান্স ও সিঙ্গাপুরের উদ্দ্যোগে ১৯৯৬ সালে এশিয়া-ইউরোপ ফোরাম প্রতিষ্ঠা করা হয়। বর্তমানে ৫১টি দেশ এশিয়া-ইউরোপ ফোরামের সদস্য।

সোমবার ফোরামের উদ্বোধনী অধিবেসনে অংশ নিবেন রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সেরগেই ল্যাভরোভ। ফোরামের মূল অধিবেশনে যোগদান করা ছাড়াও ভারত ও চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের সাথে ত্রিমুখী এক বৈঠক অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।