এদিকে মেদভেদেভে পূর্বে জানিয়েছিলেন যে, চীনের প্রধানমন্ত্রী লি কেকিয়াংকের জন্মস্থানে এ সফর অনুষ্ঠিত হবে। দুই দেশের মধ্যে মানবিক ও বৈজ্ঞানিক সহযোগিতা দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের ক্ষেত্রে অদিক গুরুত্বপূর্ণ বলে উল্লেখ করেছেন রুশ প্রধানমন্ত্রী।

রাশিয়ার প্রধানমন্ত্রীর এ সফরে চীনের সাথে নানা খাতে বেশ কয়েকটি চুক্তিপত্র সই হয়েছে।