ঘণ্টায় ২০০ কিলোমিটারের মতো ঝোড়ো হাওয়ার সঙ্গে তিন থেকে সাড়ে তিন মিটার উঁচু সামুদ্রিক ঢেউ নিয়ে ঘূর্ণিঝড়টি উপকূলে আছড়ে পড়ে। দিল্লির পুলিশ জানায়, ওডিশা ও অন্ধ্রপ্রদেশের ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা থেকে সাত লাখেরও বেশি মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেওয়া হয়। মূলত এ অঞ্চলে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়টি আঘাত হানে।

ঝড়-পরবর্তী দুর্যোগ মোকাবিলায় ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রনালয় থেকে ১০ হাজার সেনা সদস্যকে উদ্ধরকার্যে মোতায়েন করেছে। কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে ব্যাপক প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। জরুরি উদ্ধার ও ত্রাণ তৎপরতার জন্য ভুবনেশ্বর বিমানবন্দরে ২০টি হেলিকপ্টার, ৪০টি বিমান এবং দুটি যুদ্ধজাহাজ প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এর মধ্যে রাশিয়া থেকে কেনা মিই ১৭-বি৫ বিমান রয়েছে।