সূত্রটির কথায়, তিন জনঃ ধৃত মহম্মদ আব্দুল ওরফে চাঁদ, বিজয় যাদব ও কাসিম বাঙালি ইতিপূর্বে কৃত অপরাধের জন্য পুলিশের হাতে ধরা পড়েছে. ধৃত চাঁদ পুলিশের কাছে তার বাকি চার স্যাঙাতের নাম কবুল করেছে. মহম্মদ আব্দুল ওরফে চাঁদ বেকার এবং বস্তিতে থাকে.

২২-বছর বয়সী চিত্রসাংবাদিকা ও তার সহকর্মী বন্ধুর উপর হামলা করা হয় নগরীর শক্তি মিলস এলাকায় একটি পরিত্যক্ত কাপড়ের কারখানার জমিতে. হামলাকারীরা ঐ দুই জনকে সেখানে টেনে নিয়ে গিয়ে যুবকটিকে বেল্ট দিয়ে বেঁধে বেধড়ক পেটানোর পরে তরুনীটিকে ঝোঁপের ভেতর টেনে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করেছে.

তরুনী যশলোক হাসপাতালে আপাতত চিকিত্সাধীন রয়েছে. চিকিত্সকরা তার শারিরীক অবস্থার উন্নতির কথা জানাচ্ছেন.