বিল্লাল বলেন, ব্রাদারহুডের সমর্থকরা সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে হামলা চালিয়ে নিজেদের স্বার্থ উদ্ধারের আশায় আন্তর্জাতিক অঙ্গনে মিশরের ভাবমূর্তি নষ্ট করছে।

এদিকে হত্যা ও সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের কারণে মিশরীয় পুলিশ ব্রাদারহুডের ২৫০ জন কর্মীকে আটক করে তদন্ত করছে। গত ১৬ আগষ্ট তাদের আটক করা হয়।