দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার রাষ্ট্রগুলির অ্যাশোসিয়েশন আসিয়ান সংস্থার দেশগুলোর পররাষ্ট্র মন্ত্রীরা থাইল্যান্ডে এক অনানুষ্ঠানিক সাক্ষাত্কারের সময়ে চিনের সঙ্গে দক্ষিণ চিন সাগরে এলাকা সংক্রান্ত বিবাদের মীমাংসার উপায়গুলোর জন্য সর্বসম্মতি ক্রমে অবস্থান তৈরী করতে পেরেছেন. এই বিষয়ে বুধবারে ঘোষণা করেছেন ইন্দোনেশিয়ার পররাষ্ট্র দপ্তরের প্রধান মার্টি নাতালেগাওয়া.

তাঁর কথামতো, আসিয়ান দেশগুলোর অবস্থান এই প্রশ্নে স্থির হয়েছে যে দক্ষিণ চিন সাগরে আচরণের নিয়মাবলী পারস্পরিক ভরসা বৃদ্ধির জন্যই হওয়া দরকার, বিরোধ এড়ানোর জন্য ও বিবাদ মীমাংসার জন্য, যদি তা কখনও উদ্ভব হয়.

দক্ষিণ চিন সাগরে আচরণের নিয়মাবলী তৈরী করা আসিয়ান দেশ গুলোর ও তাদের প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকার সহকর্মী দেশগুলোর জন্য তৈরী করার কথা আজ বছর দশেক ধরেই এই সংস্থার শীর্ষ সম্মেলনের আলোচ্য তালিকায় রয়েছে. কিন্তু চিন আগে বহুপাক্ষিক ভাবে এলাকা সংক্রান্ত বিবাদ মেটাতে অনিচ্ছা প্রকাশ করেছিল ও চেয়েছিল শুধু দ্বিপাক্ষিক ভাবেই আলাদা করে প্রত্যেক পক্ষের সঙ্গে মেটানোর জন্য. এই প্রসঙ্গে বেজিং এই দলিলের দিকে দেখেছিল, যেন এটা তাদের বহুপাক্ষিক ভাবে মীমাংসা করার জন্য জোর করে ধরিয়ে দেওয়া হচ্ছে. জুলাই মাসে চিন প্রথম রাজী হয়েছে আসিয়ান- চিন কাঠামোতে এই বিষয় নিয়ে আলোচনা করার জন্য. এই প্রশ্ন নিয়ে আলোচনার জন্য দুটি সাক্ষাত্কারের কথা রয়েছে সেপ্টেম্বর মাসের মাঝামাঝি সময়ে.