তাঁর এখানে আজারবাইজানের রাষ্ট্রপতির সঙ্গে আজ আলোচনা শেষ হয়েছে. পুতিন জানিয়েছেন যে, দ্বিপাক্ষিক আলোচনার সময়ে আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে বাস্তব প্রশ্ন গুলি নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে, তার মধ্যে নাগোরনো-কারাবাখ সমস্যাও ছিল. ১৯৯৪ সালের মে মাসে রাশিয়ার মধ্যস্থতায় এই এলাকায় অগ্নি সম্বরণের ব্যবস্থা করা হয়েছে, যা আজও অক্ষুণ্ণ রয়েছে. ২০০৮ সালের নভেম্বর মাসে মস্কো শহরে রাশিয়া আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের রাষ্ট্রপতিদের ত্রিপাক্ষিক সাক্ষাত্কারের সময়ে এই সমস্যাকে রাজনৈতিক ভাবে মীমাংসা করার স্বপক্ষে সমঝোতা হয়েছিল. আজারবাইজান রাষ্ট্রের মধ্যে আর্মেনিয়ার সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষের বাস সমেত এই এলাকায় ১৯৯০ এর দশকের শুরুতে সশস্ত্র সংঘর্ষ হয়েছিল ও তার পরে আর্মেনিয়ার সহায়তা পেয়ে এই এলাকা নিজেদের স্বাধীন ঘোষণা করেছিল.