এ সফরে মূলত আফগানিস্তানের ভবিষ্যত কেমন হবে তাই আলোচনায় প্রধান গুরুত্ব পাবে। তবে একই সাথে দুই প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে সম্প্রতি কাশ্মীর সীমান্ত এলাকা নিয়ে যে উত্তেজনা বিরাজ করছে তা স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে আসা নিয়ে কথা বলবেন বান কি মুন। ভূখন্ড নিয়ে বিরোধপূর্ণ সমস্যা নিরসণে মধ্যস্থতাকারী হিসেবে পাক-ভারত সংলাপে অংশ নিতে বান কি মুন তৈরী আছেন বলে সম্প্রতি এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, বিতর্কিত কাশ্মীর সীমান্ত নিয়ে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে বর্তমানে টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে। গত ৬ আগষ্ট সীমান্ত এলাকায় গোলাগুলিতে ৫ ভারতীয় ও ১ পাকিস্তানি সেনা নিহত হয়।