এ সম্বন্ধে বলেছেন ইস্রাইলের আইনমন্ত্রী সিপি লিভনি, যিনি নিজের দেশের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব করছেন. তাঁর কথায়, আলাপ-আলেচনার আসন্ন রাউন্ড অনুষ্ঠিত হবে ইস্রাইলে, তার পরেরটি – প্যালেস্টাইনী ভূভাগে. লিভনি বলেন যে. ইস্রাইল প্রত্যক্ষ আলাপ-আলোচনার চেষ্টা করছে. তিনি জানান যে, আলাপ-আলোচনার ইস্রাইলী রাউন্ড শুরু হওয়ার আগে ১৪ জন প্যালেস্টাইনী বন্দীকে মুক্ত করা হবে. ২০১০ সালে ছিন্ন হওয়া প্যালেস্টাইনী-ইস্রাইলী আলাপ-আলোচনা পুনরারম্ভ হয় ওয়াশিংটনে, জুলাই মাসের শেষে. তার অংশগ্রহণকারীদের প্রতি শুভেচ্ছা বার্তায় নিকট প্রাচ্য মধ্যস্থ চতুষ্টয় (রাশিয়া, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, রাষ্ট্রসঙ্ঘ ও ইউরোসঙ্ঘ) জোর দিয়ে বলেছে যে, আলাপ-আলোচনা প্রক্রিয়ার অন্তিম লক্ষ্য হওয়া উচিত্ স্বাধীন প্যালেস্টাইনী রাষ্ট্রের গঠন, যা ইস্রাইলের সাথে শান্তিতে বাস করবে.