গ্রেট-বৃটেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী উইলিয়াম হেগ বলেছেন যে, সিরিয়ায় অস্ত্র সরবরাহে নিষেধাজ্ঞা ন থাকার অর্থ এ নয় যে, লন্ডন অবশ্যই তার সরবরাহ শুরু করবে. সেই সঙ্গে, তিনি সন্দেহ প্রকাশ করেন যে, ইউরোসঙ্ঘের দেশগুলির পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের পরিষদের বৈঠকে সিরিয়া সম্পর্কে নতুন কোনো সিদ্ধান্ত গৃহীত হবে. বৈঠক শুরু হওয়ার আগে হেগ আবার জোর দিয়ে বলেন যে, সিরিয়ায় অস্ত্র সরবরাহে নিষেধাজ্ঞা প্রলম্বন না করা সম্পর্কে ইউরোসঙ্ঘের সিদ্ধান্তের অর্থ এ নয় যে, বিরোধীপক্ষকে অস্ত্র সরবরাহের অবশ্যম্ভাবী সিদ্ধান্ত. তিনি মনে করিয়ে দেন যে, ইউরোসঙ্ঘ সিরিয়াবাসীদের মানবতাবাদী সাহায্যের সবচেয়ে বড় প্রেরক. বিশেষ করে, সিরিয়ার বিরোধীপক্ষের জাতীয় কোয়ালিশনকে রাসায়নিক অস্ত্র খুঁজে বার করার উপায় সরবরাহ করা হয়েছে.