তুরস্কের সাথে সীমানায় সিরিয়ার রাস-আল-আইন শহর কুর্দ স্বেচ্ছা-সৈনিকদের নিয়ন্ত্রণে চলে গিয়েছে, জানিয়েছে আরব প্রচার মাধ্যম. কুর্দ স্বেচ্ছা সৈনিক এবং ইস্লামপন্থীদের মাঝে সশস্ত্র সঙ্ঘর্ষ শুরু হয় মঙ্গলবার রাতে, এ লড়াইয়ের ফলে ১১ জন নিহত হয়: নয়জন ইস্লামপন্থী এবং দুজন কুর্দ স্বেচ্ছা সৈনিক.ইস্লামপন্থীদের নিয়ন্ত্রণে, যাদের বেশির ভাগই “জাভাত আন-নুসরা” রাডিক্যাল গ্রুপের অন্তর্ভুক্ত, রয়ে গেছে শুধু সীমান্ত চৌকি, যার কাছে লড়াই চলছে. ইস্লামপন্থীদের দলের বেশির ভাগ অংশ কাছের বসতি কেন্দ্রে সরে এসেছে. সিরিয়ার সেনাবাহিনী দেশের উত্তর-পুবে কুর্দ অঞ্চলগুলি ছেড়ে যায়, শুধু দুটি বড় শহর হাসেক ও কামিশ্লা ছাড়া. এ অঞ্চলের বাকি সব বসতি-কেন্দ্র কুর্দদের নিয়ন্ত্রণে চলে গিয়েছে. ইস্লামপন্থী জঙ্গী এবং বিরোধীপক্ষের “সিরিয়ার স্বাধীন বাহিনীর” সাথে কুর্দদের সঙ্ঘর্ষ শুরু হয় গত বছরের নভেম্বরে, যখন বিরোধী শক্তিগুলি একসারি কুর্দ বসতি-কেন্দ্রে নিজেদের নিয়ন্ত্রণ স্থাপন করে.