রাষ্ট্রসংঘের সদর কার্যালয় থেকে জানানো হয়েছে, যে সাধারণ সম্পাদক বান কি মুন ডার্ফুরে ৭ জন তানজানিয়ার নাগরিক ও এ্যাফ্রো ইউনিয়নের  শান্তিরক্ষকদের প্রাপ্য শাস্তি দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন সুদান সরকারের কাছে.

      শনিবার তাদের শিবিরের অনতিদূরে মানাভাশি শহরের কাছে শান্তিরক্ষকরা টহল দেওয়ার সময় আক্রান্ত হয়. ৭ জন শান্তিরক্ষক নিহত ও ১৮ জন আহত হয়েছে.

      ২০০৭ সালে এ্যাফ্রো ইউনিয়নের সৈনিকদের ডার্ফুরে শান্তি রক্ষা করার দায়িত্ব দিয়ে পাঠানোর পরে আজ পর্যন্ত বেশ কয়েক ডজন শান্তিরক্ষাকর্মী সন্ত্রাসের শিকার হয়েছে. রাষ্ট্রসংঘ একাধিকবার 'আসমানী টুপি' পরিহিতদের উপর আক্রমণের তীব্র নিন্দা করে বলেছে, যে এটা মানবিক অধিকার লঙ্ঘন এবং এর মূল্যায়ন করা যেতে পারে সামরিক অপরাধ হিসাবে.