সিআইএ-র প্রাক্তন কর্মীএডওয়ার্ড স্নোডেন বিমানের টিকিট কিনতে পারছে না মার্কিনী কর্তৃপক্ষের দ্বারা তার পাসপোর্ট বাতিলের জন্য, আর তাই সে “শেরেমেতিয়েভো” বিমানবন্দরের ট্রানজিট জোনে থাকতে বাধ্য হচ্ছে. এ সম্বন্ধে ইন্টারফাক্স সংবাদ এজেন্সিকে জানিয়েছেন প্রাক্তন গুপ্তচরের ঘনিষ্ঠ এক উত্স. তাঁর কথায়, স্নোডেনের কাছে ব্যক্তিত্ব প্রমাণের অন্য কোনো দলিল নেই, আর তাই সে রাশিয়ায় ঢুকতে পারছে না, আবার টিকিটও কিনতে পারছে না. আগে মার্কিনী কর্তৃপক্ষ আশা প্রকাশ করেছিল যে, তাকে দেশে ফিরিয়ে দেওয়া হবে. এ সম্বন্ধে এক সাংবাদিক সম্মেলনে বলেন মার্কিনী পররাষ্ট্র বিভাগের প্রতিনিধি প্যাট্রিক ভেনট্রেল. সেই সঙ্গে, তাঁর কথায়, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র রাশিয়ার সাথে সম্পর্ক খারাপ করতে চায় না. প্রাক্কালে রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন বলেন যে, স্নোডেন সত্যিই “শেরেমেতিয়েভো” বিমানবন্দরে এসেছে এবং রয়েছে বিমানবন্দরের ট্রানজিট জোনে. রাশিয়ার সীমানা সে অতিক্রম করে নি.