ফ্রান্সের পররাষ্ট্র মন্ত্রী লোরান ফাবিয়ুস বলেছেন যে, “আমরা কার হাতে অস্ত্র গিয়ে পড়বে, তা স্পষ্ট করে না বুঝে ভারী অস্ত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেবো না, কারণ আমরা চাইব না যে, তা আমাদের বিরুদ্ধেই পরে ব্যবহার করা হোক. ঠিক এই কারণেই আমরা সলিম ইদ্রিশের সঙ্গে আলাদা করে আলোচনা করতে চাই, যে জেনারেল বিরোধী পক্ষের হয়ে সিরিয়ার মুক্তি বাহিনীর নেতৃত্ব দিচ্ছেন”.

তিনি আরও বলেছেন যে, “বিরোধীদের অস্ত্র সরবরাহের সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে ১লা আগষ্টের আগে নয়”.