ভারত. রাশিয়া, নেপাল, আফগানিস্তান, ইরানের রবীন্দ্রনাথের সৃজনের ভক্ত ও অনুরাগীরা তাঁর প্রসিদ্ধ 'কাবুলিওয়ালা' গল্পটি মঞ্চস্থ করছেন মস্কোয়. রবীন্দ্রসাহিত্য সন্ধ্যায় রাজধানীর হায়ার স্কুল অফ ইকনমিক্সের সাংস্কৃতিক মঞ্চে তারা করলেন তার উপস্থাপনা. রাশিয়ায় ভারতের রাষ্ট্রদূত অজয় মলহোত্র মনে করেন, যে শৈশব থেকে প্রতিটি ভারতীয়ের পরিচিত 'কাবুলিওয়ালা' গল্প অবলম্বনে প্রযোজিত নাটকে বিভিন্ন দেশের মানুষের অভিনয় করাটা ঘটনাচক্র নয়, কারণ, বাস্তবেই রবীন্দ্রনাথ ছিলেন আদ্যন্ত বিশ্বজনীন.-

     রাষ্ট্রদূত অজয় মলহোত্র স্মরণ করিয়ে দিচ্ছেন, যে কবিগুরু ভারতের কথা ও কাহিনী বিশ্বকে জানাতে উদগ্রীব ছিলেন এবং সেইসাথেই বহির্বিশ্বের শিল্পসাহিত্যের জ্ঞান ও চিন্তাভাবনা তিনি ভারতীয় শিল্পের ভূমিতে রোপণ করেছিলেন. কবিগুরু পৃথিবীর বিভিন্ন প্রান্ত সশরীরে অবলোকন করেছিলেন. তারমধ্যে রাশিয়া, চীন, জাপান, নেপালও ছিল. এই সুমহান কবি, লেখক, চিত্রশিল্পীর বহুমুখী সৃষ্টিসম্ভারে রয়েছে আমাদের জন্য বার্তা, যা আজকের দিনে বিশেষ করে যুগোপযোগী. রবীন্দ্রনাথ মানুষে বিশ্বাস রাখতেন এবং আমাদের আহ্বান জানিয়েছেন পারস্পরিক সাংস্কৃতিক বিনিময় ও বিভিন্ন জাতির মানুষের মধ্যে ঐতিহ্যের আদানপ্রদান গড়ে তোলার.

    বিভিন্ন সংস্কৃতি, নাটকের ঐতিহ্য, পেশাদার ও সখের অভিনেতাদের ফলবতী সহযোগিতা প্রাণবন্ত হয়ে উঠেছে নাট্যরূপে 'কাবুলিওয়ালা'র উপস্থাপনায়. নাটকটি করা হচ্ছে হিন্দি ভাষায়. সেখানে অভিনয় করছেন রাশিয়ার পেশাদার থিয়েটার অভিনেত্রী জুলিয়া গুসেভা, রেডিও রাশিয়ার সঞ্চালক আফগানিস্তানের হায়দার শাহ্, রুশী গণমৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক ও বর্তমানে ব্যবসাজীবি নেপালের মণি রাজ পোখারেল, ইরানের একটি মেয়ে ও সাত বছর বয়সী ভারতীয় বালিকা আয়ুশি দাস. প্রিয় শ্রোতারা, এখন আপনাদের সুযোগ আছে নিজেদের কানে এই চিত্তাকর্ষক নাটকটির একাংশ শোনার.-

    মস্কোয় রবীন্দ্রসাহিত্য সন্ধ্যা ছিল মে মাসে আমাদের দেশে শুরু হওয়া রবীন্দ্র জন্মবার্ষিকী উদযাপন সূচীর ধারাবাহী. শুধু আমাদের দুই রাজধানীতেই নয়, এবার রবীন্দ্র সন্ধ্যা ও প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছিল একাতেরিনবার্গে, ক্রাসনাদারে, ভলগোগ্রাদে - স্মরণ করিয়ে দিচ্ছেন রাশিয়ায় অগ্রগণ্যা বাংলা ভাষাবিদ এবং মস্কোস্থিত আন্তর্জাতিক সম্পর্ক ইনস্টিটিউটের বাংলা বিভাগের অধিকর্ত্রী ইরিনা প্রকোফিয়েভা. তার ছাত্রছাত্রীরা কবিগুরুর কবিতা বাংলায় আবৃত্তি করে এবং রুশীতে অনুবাদও করে.-

    আন্তর্জাতিক সম্পর্ক ইনস্টিটিউটের শিক্ষার্থীরা বলছেন - রবীন্দ্রনাথ ভীষন আধুনিক কবি ও সাহিত্যিক. বাংলা ভাষা অধ্যয়নকারী দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র আন্তন ভেরেশাগিন বলছে - "রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর আমাদের সামনে ভারতের অন্তর্জগত, তার স্বকীয় কৃষ্টি, ঐতিহ্য এবং তার জনসাধারণের রীতিনীতি উদ্ঘাটন করেছেন". "অত্যন্ত সূক্ষ গীতিময়, গভীর দার্শনিক, অসাধারণ বলিষ্ঠ মনস্তত্ত্ববিদ গুরুদেবের কবিতা অনুবাদ করা খুব কঠিন, কিন্তু মন কাড়ে" - বলছে মারিয়া কোভালোভা. বাংলা ভাষা পঠনরতা এই ছাত্রীটির করা রবীন্দ্রনাথের কবিতার অনুবাদ শীঘ্রই প্রকাশিত হবে রাশিয়ায় মর্যাদাসম্পন্ন 'প্রাচ্যের সংগ্রহ' নামক সাময়িকী পত্রিকায়.

    আর আমাদের আজকের অনুষ্ঠান শেষ করছি রাশিয়ার কলাকুশলীদের পরিবেশনায় একটি সুরেলা রবীন্দ্রসঙ্গীত শুনিয়ে.-