সিরিয়ার বিরোধীপক্ষ এল-কুসেইরে আর্টিলারী এবং আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ব্যবহার করেছে, মার্কিনী সি.বি.এস টেলি-চ্যানেলকে প্রদত্ত ইন্টারভিউতে বলেছেন রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরোভ. তাঁর কথায়, এল-কুসেইরে উভয় পক্ষই ভারী অস্ত্রসজ্জা ব্যবহার করেছে. তিনি উল্লেখ করেন যে, সঙ্ঘর্ষের সময় উভয় পক্ষই সামরিক অপরাধ সাধন করেছে, যার তদন্ত করা উচিত্, তবে সর্বপ্রথমে রক্তক্ষয় থামানো উচিত্. লাভরোভ মার্কিনী পক্ষের স্থিতির সমালোচনা করেন, যা তাঁর মতে, সিরিয়ার বিরোধীপক্ষকে সমর্থন করছে. তাছাড়া, লাভরোভ বলেন যে, মস্কোয় জেনেভায় সিরিয়া সম্পর্কে আন্তর্জাতিক সম্মেলন আয়োজনের দেরির জন্য দায়িত্ব আরোপিত হচ্ছ সিরিয়ার বিরোধীপক্ষের জাতীয় কোয়ালিশনের উপর. লাভরোভ উল্লেখ করেন যে, সিরিয়ার বিরোধীপক্ষ আলাপ-আলোচনার জন্য প্রস্তুত তো নয়ই, এমনকি তারা নির্ধারণ করতে পারছে না কে তাদের মধ্যে দায়িত্বশীল ব্যক্তি. লাভরোভের কথায়, মস্কোয় এ কথাও বিশ্বাস করা হয় যে, সিরিয়ার রাষ্ট্রপতি বাশার আসদ আয়োজিতব্য আন্তর্জাতিক সম্মেলনের জন্য নিজের প্রতিনিধিদল সত্যিই পাঠাবেন. একই সঙ্গে তিনি উল্লেখ করেন যে, পাশ্চাত্যে প্রচারিত মত সত্ত্বেও রাশিয়া সিরিয়ার রাষ্ট্রপতি বাশার আসদ-কে সমর্থন করছে না. লাভরোভ বলেন যে, ঐ শাসন ব্যবস্থা কি করছে তার জন্য রাশিয়া দায়িত্ব গ্রহণ করতে পারে না এবং রাশিয়া আন্তর্জাতিক মানবতাবাদী বিধানের যেকোনো লঙ্ঘনের নিন্দা করে. তিনি উল্লেখ করেন যে, রাশিয়া তাদের সকলকে সহযোগী হিসেবে দেখে, যারা সিরিয়ায় যুদ্ধ বন্ধ করতে চায়. তাছাড়া লাভরোভ বলেন যে, রাশিয়া সিরিয়াকে কোনো অস্ত্র সরবরাহ করে নি, শুধু প্রতিরক্ষাত্মক অস্ত্র ছাড়া, যা করা হয়েছে বিদ্যমান চুক্তির কাঠামোতে.