রাষ্ট্রসঙ্ঘের তরফ থেকে সরকারি মুখপাত্রের সহকারী ফারহান হক ঘোষণা করেছেন যে, গোলান হাইটস এলাকায় নীল বেরেট বাহিনীতে অস্ট্রিয়া থেকে পাঠানো সেনাদের বিকল্প খোঁজ করা হচ্ছে, আগে অস্ট্রিয়া এই এলাকা থেকে নিজেদের সেনাদল সরিয়ে নেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিল.

নিজেদের সেনা বাহিনীর লোকদের জীবনের ঝুঁকি থেকে আগে একাধিকবার অস্ট্রিয়া থেকে সেনা সরিয়ে নেওয়ার সম্ভাবনা জানানো হয়েছিল, কিন্তু পরিস্থিতি খারাপ হতে দেখে ভিয়েনা থেকে নিজেদের সেনা বাহিনী সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়েছে. এখানে অস্ট্রিয়ার সেনা বাহিনীর সংখ্যাই বেশী ছিল – তিনশ জন, আর তাই হক বলেছেন যে, এখন বিভিন্ন দেশের সঙ্গে রাষ্ট্র সঙ্ঘের তরফ থেকে শান্তি রক্ষা বাহিনীতে সেনা পাঠানোর জন্য কথা হচ্ছে.

ইজরায়েল ও সিরিয়ার বাহিনীর মধ্যে শান্তি রক্ষার জন্য রাষ্ট্র সঙ্ঘের মিশন এখানে পাঠানো হয়েছিল, আর এবারে আরও একটি গুলি চালনা ও তার ফলে এক শান্তিরক্ষকের আহত হওয়ার বিষয়ে তদন্ত করা হচ্ছে. সিরিয়ার বাহিনী বলছে যে, বিরোধীরা বাইরে থেকে সহায়তা পেয়ে এলাকা থেকে রাষ্ট্রসঙ্ঘের মিশনকে তাড়িয়ে দিতে চাইছে.