মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় গুপ্তচর বিভাগের কাছে সর্বদা সঠিক তথ্য ছিল না, পাকিস্তানে মার্কিনী ড্রোন বিমানের আঘাতের লক্ষ্য কে ছিল. এ সম্বন্ধে এন.বি.সি টেলি-চ্যানেল জানিয়েছে গুপ্তচর বিভাগের গোপন রিপোর্টের উদ্ধৃতি দিয়ে. তার তথ্য অনুযায়ী, ২০১০ সালের ৩রা সেপ্টেম্বর থেকে ২০১১ সালের ২০শে অক্টোবরের মধ্যে ড্রোন বিমানের আক্রমণের ফলে নিহত প্রতি চতুর্থ ব্যক্তিকে দলিলে উল্লেখ করা হয়েছে “অন্যান্য জঙ্গী” হিসেবে. এইভাবে, সি.আই.এ নির্ধারণ করতে পারে নি এই লোকেরা কোন গ্রুপে পড়ে, এবং বোঝার উপায় নেই এদের তরফ থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা বিপন্ন হওয়ার কি ভিত্তি দেখেছিল, উল্লেখ করেছে টেলি-চ্যানেল. বুধবার পাকিস্তানের নতুন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে আহ্বান জানিয়েছেন অনুমিত সন্ত্রাসবাদীদের উপর ড্রোন বিমানের আঘাত বন্ধ করার, যাতে শান্তিপূর্ণ অধিবাসীদের মৃত্যু নিবারণ করা যায়.