সিরিয়ার রাষ্ট্রপতি বাশার আসদ এ কথা সমর্থন করেছেন যে, দামাস্কাস “মূলনীতিগত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে “জেনেভা-২” শান্তি সম্মেলনে অংশগ্রহণের”. এ সম্বন্ধে তিনি বলেছেন লেবাননের “আল-মানার” টেলি-চ্যানেলকে প্রদত্ত ইন্টারভিউতে. আসদ উল্লেখ করেছেন যে, এ সম্মেলন থেকে সিরিয়া গুরুত্বপূর্ণ কোনো সিদ্ধান্তের আশা করছে না. সিরিয়ার পরিস্থিতির কথায় এসে আসদ বলেন যে, সিরিয়ায় সামরিক শক্তির অনুপাত “সেনাবাহিনীর পক্ষে বদলেছে”, যা সম্প্রতিকালে সন্ত্রাসবাদী দলগুলির সাথে মোকাবিলায় বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সাফল্য অর্জন করেছে. সিরিয়ার নেতা তুরস্ক, সৌদি আরব ও কাতারের নিন্দা করেছেন, যারা “জঙ্গীদের অর্থ যোগাচ্ছে এবং সব রকমে সাহায্য করছে”. তিনি জানান যে, এ সব দেশের সহায়তায় আরব দেশগুলি এবং অন্যান্য রাষ্ট্রের ১ লক্ষ ভাড়াটে যোদ্ধা সিরিয়ায় অনুপ্রবেশ করেছে. রাষ্ট্রপতি এ কথা সমর্থন করেন যে, হেজবোল্লা দলের যোদ্ধারা সরকারী বাহিনীর পক্ষে লড়াইয়ে অংশ নিচ্ছে লেবাননের সাথে সীমান্তবর্তী এলাকায়, তবে, তাঁর কথায়, “প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে লড়াই চালাচ্ছে সিরিয়ার সেনাবাহিনী”.