ইউরোসঙ্ঘের পররাষ্ট্র বিষয়ক হাই-কমিশনার ক্যাথ্রিন অ্যাশটন তুরস্কের রাইহানলি সন্ত্রাসে হতাহতদের আত্মীয়-স্বজনের কাছে গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন. এ সম্বন্ধে জানিয়েছে ইউরোপীয় কূটনীতির প্রধানের প্রেস-সার্ভিস. ব্রাসেলসে রবিবার প্রচারিত বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়েছে যে অ্যাশটন “বিপুল সংখ্যক লোক হতাহত হওয়ায় মর্মাহত”. শনিবার তুরস্ক-সিরিয়া সীমানায় রাইহানলি শহরে বিস্ফোরণের ফলে ৪৬ জন নিহত হয়েছে, এবং প্রায় ১০০ জন আহত হয়েছে. তুরস্কের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মুয়াম্মার গুলের বলেন যে, এ সন্ত্রাসে সিরিয়ার গোয়েন্দা বিভাগ লিপ্ত ছিল. নিজের তরফ থেকে সিরিয়ার তথ্যমন্ত্রী ওমরান আজ-জোউবি বলেছেন যে, এ সন্ত্রাসের সাথে দামাস্কাসের কোনো সম্পর্ক নেই. একই সঙ্গে তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আহমেত দউতওগলু বলেছেন যে, তুরস্ক রাইহানলি সন্ত্রাসের উত্তরে যেকোনো ব্যবস্থা গ্রহণে নিজের অধিকার বজায় রাখছে.