পাকিস্তানের করাচিতে শনিবার দুটি শক্তিশালী বোমা বিস্ফোরোণে তিনজন নিহত এবং প্রায় ২২ জন মারাত্মক আহত হয়েছে। রাজনৈতিক দল মুত্তাহিদা কওয়ামীর কার্যালয়ের সামনে এ বিস্ফোরণ ঘটে। স্থানীয় পুলিশের প্রতিনিধি আমিরা ফারুকী সংবাদ মাধ্যমে এর সত্যতা নিশ্চিত করে। এদিকে দেশটির উগ্রবাদী ইসলামিক দল তেহরিক-ই-তালেবান এ হামলায় নিজেদের জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। পাকিস্তানে আগামী ১১ মে হতে যাওয়া স্থানীয় সরকার নির্বাচনকে ব্যাহত করতে উগ্রবাদী দলটির প্রস্তুতি সম্পর্কে পাকিস্তান পুলিশ দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে আগে থেকে সতর্ক করে।

উল্লেখ্য, এপ্রিলের শেষ সময় থেকে পাকিস্তানের বিভিন্ন শহরে প্রভাব বিস্তার করতে থাকা উগ্রবাদী দলটি লিফলেটের মাধ্যমে সাধারণ জনগণকে মৃত্যু এড়াতে নির্বাচন বয়কটের আহবান জানায়। এর আগে তেহরিক-ই-তালেবানের মুখপাত্র এহসানুল্লা এহসান এক বিবৃতিতে বলেন, গণতন্ত্র ইসলামের বিরোধী হিসেবে কাজ করে এবং এ কারণে আমারা তথাকথিত গণতন্ত্রের সবধরনের কার্যকলাপের বিরোধী।