শনিবার মিশরের রাষ্ট্রীয় দূরদর্শন জানিয়েছে, যে হেলিকপ্টারে করে অসুস্থ হোসনি মুবারককে কায়রোয় পৌঁছে দেওয়া হয়েছে.

২০১১ সালে প্রতিবাদী গণ আন্দোলন চলার সময় ৮৫০ জনের মৃত্যুর জন্য মুবারককে দোষী সাব্যস্ত করেছিল আদালত গত বছর. শুনানী শুরু হয়েছে কায়রো শহরের উপকন্ঠে. দূরদর্শনে দেখানো হয়েছে, কিভাবে ৮৪-বছর বয়সী অথর্ব মুবারককে আদালত ভবনে ঢোকানো হচ্ছে. এই বছরের জানুয়ারী মাসে আসামী পক্ষ আপীল করার পরে আদালত রায় পুণর্বিবেচনা করার সিদ্ধান্ত নেয়.

স্থানীয় সংবাদসংস্থা ‘মেনা’ প্রদত্ত খবর অনুযায়ী, এপ্রিলের শুরুতে জাতীয় প্রসিকিউটর দপ্তর হোসনি মুবারকের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ এনেছে. প্রসিকিউটর দপ্তরের সন্দেহ এই, যে রাষ্ট্রপতি ভবনের মেরামতির জন্য বরাদ্দ অর্থ প্রাক্তন রাষ্ট্রপ্রধান নয়ছয় করেছিলেন.