শুক্রবার মার্কিনী বিদেশ দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে, যে আমেরিকার মতে, চীন কোরিয় উপদ্বীপে চলতি সমস্যাবলীর সমাধানের ক্ষেত্রে আরো অনেক বেশি সক্রিয় ভূমিকা নিতে পারে.

“চীনের স্থিতিশীলতা অর্জন করার জন্য যথেষ্ট ক্ষমতা রয়েছে, আর পারমানবিক রকেটের পেছনে চলতে থাকা উত্তর কোরিয়ার দৌড় – স্থিতিশীলতার পরম শত্রু” – বলেছেন মার্কিনী বিদেশ দপ্তরের নামোল্লেখ না করা প্রতিনিধি.

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কাছে এটা পরিষ্কার, যে উত্তর কোরিয়া কিছু না হলেও, নতুন রকেট নিক্ষেপ করতে যাচ্ছে. ফলশ্রুতিতে, এর নিন্দা করা ছাড়া মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অন্য কোনো বিকল্প থাকবে না – এই মন্তব্য করেছেন বিদেশ সফরে বিদেশ সচিব জন কেরির পার্শ্বদ এক কূটনীতিবিদ. কেরি সেওলের উদ্দেশ্যে রওনা দিচ্ছেন. তারপর তিনি যাবেন বেইজিং ও টোকিও, যেখানে কোরিয় উপদ্বীপের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করবেন.