রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরোভ শুক্রবার উত্তর কোরিয়াকে কেন্দ্র করে সামরিক সক্রিয়তা বৃদ্ধির প্রচেষ্টায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন. রাশিয়া উদ্বিগ্ন যে, উত্তর কোরিয়াকে কেন্দ্র করে একতরফা সামরিক সক্রিয়তা বাড়ানো হচ্ছে, যা পরিস্থিতিকে নিয়ন্ত্রণের বাইরে নিয়ে যেতে পারে. মন্ত্রী উল্লেখ করেন যে, ছয়পাক্ষিক আলাপ-আলোচনা পুনরারম্ভ করার জন্য পরিবেশ সৃষ্টির জন্য প্রচেষ্টা সমাবেশ করা উচিত, আর পরিস্থিতিকে “সামরিক উপায়ে কোনো ভূ-রাজনৈতিক কর্তব্য সাধনের অজুহাত হিসেবে” ব্যবহার করা উচিত্ নয়. আগে এ সপ্তাহে উত্তর কোরিয়ার নেতৃবৃন্দ কোরীয় উপদ্বীপে সামরিক সঙ্ঘর্ষের বিপদ সম্পর্কে রাষ্ট্রসঙ্ঘকে সতর্ক করে দিয়েছিল. পিয়ংইয়ং এ অঞ্চলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়ার যৌথ সামরিক মহড়া পরিচালনাকে তার জাতীয় নিরাপত্তার জন্য বিপদ বলে বিবেচনা করে. এর প্রাক্কালে দুটি মার্কিনী বোমারু বিমান মহড়ার কাঠামোতে এই প্রথম কোরিয়া উপদ্বীপে বোমা বর্ষণ করেছে. উত্তরে উত্তর কোরিয়ার রকেট বাহিনীকে যুদ্ধ-প্রস্তুতির অবস্থায় আনা হয়েছে. কিম চেন ঈন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ও দক্ষিণ কোরিয়ায় মার্কিনী সামরিক ঘাঁটির উপর আঘাত হানার পরিকল্পনা স্বাক্ষর করেছেন.