বৃহস্পতিবার ইরান, সিরিয়া ও উত্তর কোরিয়া পৃথিবীতে অস্ত্রের বেআইনি আদানপ্রদাণ আটকানোর জন্য জাতিসংঘে প্রণীত খয়ড়া বিল পাশ হতে দেয়নি. ‘রিয়া নোভোস্তি’ এই সংবাদ জানিয়েছে.

১০ দিন ধরে চলা আলাপ-আলোচনার শেষে এই প্রকল্পের হোতা অস্ট্রেলিয়ার পিটার ওয়ালকট বলেছেন – “এটা পরিস্কার, যে আমরা ঐক্যমতে পৌঁছাতে সক্ষম হইনি”.

ইরান, সিরিয়া ও উত্তর কোরিয়ার প্রতিনিধিরা খসড়াবিলটিকে ‘ভারসাম্যহীন’ বলে অভিহিত করে বলেছেন, যে এই বিল মুখ্য অস্ত্র রপ্তানীকারীদের তাদের শর্ত জোর করে চাপিয়ে দিতে সাহায্য করবে.

অস্ত্র বিক্রয়ের বিষয়ে আন্তর্জাতিক চুক্তির বয়ান নিয়ে জাতিসংঘের সদস্য দেশগুলি ঐক্যমতে পৌঁছাতে না পারায় সাধারণ সম্পাদক বান কি মুন তাঁর হতাশা প্রকাশ করেছেন. তাঁর বার্তায় উল্লেখ করা হয়েছে, যে চুক্তির বয়ান ছিল ভারসাম্যধারী ও তা সাধারণ অস্ত্রশস্ত্রের আন্তর্জাতিক কেনাবেচার উপর নিয়ন্ত্রণ কায়েম করার কার্যকরী যন্ত্র হতে পারতো.

এর আগে রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রকের নিরাপত্তা ও অস্ত্রহ্রাস বিষয়ক দপ্তরের প্রতিনিধি মিখাইল উলিয়ানভ ঘোষনা করেছিলেন, যে ঐ দলিলে রাশিয়ার পক্ষে একেবারেই অগ্রহণযোগ্য কিছু ছিল না.