রাশিয়ার পররাষ্ট্র দপ্তর থেকে ঘোষণা করা হয়েছে যে, সিরিয়াতে সশস্ত্র বিরোধী পক্ষের তরফ থেকে রাসায়নিক অস্ত্রের ব্যবহার এই দেশের সঙ্কটকে এক নতুন স্তরে নিয়ে গিয়েছে. রাশিয়া আরও উদ্বিগ্ন এই কারণে যে, সশস্ত্র বিরোধীদের হাতে রাসায়নিক অস্ত্র পড়েছে, ফলে তার ব্যবহারে বেশ কিছু লোকের মৃত্যু হয়েছে. পররাষ্ট্র দপ্তরের সাইটে মঙ্গলবারে এই ঘোষণা করা হয়েছে. পররাষ্ট্র দপ্তরে মনে করা হয়েছে যে, এই নতুন ও খুবই উদ্বেগজনক পরিস্থিতির বদল হওয়াতে সঙ্কট বাড়তে পারে. মস্কো থেকে আবারও সকল পক্ষকে অস্ত্র পরিহার করে আলোচনায় বসার আহ্বান করা হয়েছে এবং রাজনৈতিক ভাবে বাস্তব সম্মত পদক্ষেপ নিয়ে জেনেভা সম্মেলনে নেওয়া সমঝোতা অনুযায়ী সঙ্কটের সমাধান করার. তার জন্য কার্যকরী গোষ্ঠী, যা ২০১২ সালের ৩০শে জুন তৈরী হয়েছিল, তার সাহায্য নেওয়ার.

 রাশিয়ার কূটনৈতিক দপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, বিস্ফোরণের ফলে আলেপ্পো শহর থেকে স্বল্প দূরে বিষাক্ত পদার্থের সংস্পর্শে এসে ষোলজন নিহত হয়েছেন ও প্রায় ১০০ জন আহত হয়েছেন. সিরিয়ার সরকারি তথ্য সংস্থা সানা জানিয়েছে যে, এই বিস্ফোরণে নিহত হয়েছে ২৫ জন ও তারা মূলতঃ সেনা বাহিনীর লোক.

 এর আগে জানানো হয়েছিল যে, সিরিয়ার আলেপ্পো রাজ্যে রাসায়নিক বিস্ফোরক সহ একটি রকেট ফেটেছে, এই ঘটনার দায়িত্ব একে অপরের উপরে চাপাচ্ছে প্রশাসন ও জঙ্গীরা.