চীনা নেতৃবৃন্দের নতুন বিন্যাস অনুমোদিত হবে ১৭ই মার্চ, দেশের সর্বোচ্চ বিধানিক সংস্থার – দ্বাদশ সর্ব-চীনা গণ-প্রতিনিধি সভা প্রথম অধিবেশন শেষ হওয়ার দিন. এ সম্বন্ধে সোমবার সাংবাদিকদের জানিয়েছেন সর্ব-চীনা গণ-প্রতিনিধি সভার প্রতিনিধি ফু ইইঙ্গ. চীনের পার্লামেন্টের বৈঠক বেজিংয়ে শুরু হবে ৫ই মার্চ. বৈঠকের শেষ দিন ১৭ই মার্চ নির্বাচন করা হবে সর্ব-চীনা গণ-প্রতিনিধি সভার সভাপতিকে, চীনের সভাপতিকে, দেশের উপ-সভাপতিকে, রাষ্ট্রীয় পরিষদের প্রধানমন্ত্রীকে, এবং তাছাড়া বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের নেতাদের, চীনের গণ ব্যাঙ্কের পরিচালকমন্ডলীকে এবং আদালতের প্রধান বিচারকদের. ফু ইইঙ্গের কথায় ১৭ই মার্চ সকালে চীনের রাষ্ট্রীয় পরিষদের নতুন প্রধানমন্ত্রী সাংবাদিকদের সাথে সাক্ষাত্ করবেন এক সাংবাদিক সম্মেলনে. চীনের নেতৃবৃন্দের নতুন “পঞ্চম প্রজন্মের” হাতে শাসন ক্ষমতা অর্পণের প্রক্রিয়া শুরু হয় ২০১২ সালের নভেম্বরে দেশের কমিউনিস্ট পার্টির অষ্টাদশ কংগ্রেসে. পার্টির প্রধান সচিব হিসেবে নির্বাচিত হন দেশের উপ-সভাপতি সি জিনপিন. আশা করা হচ্ছে যে, তিনিই হবেন চীনের সভাপতি, আর প্রধানমন্ত্রীর পদ গ্রহণ করবেন বর্তমান উপ-প্রধানমন্ত্রী লি কেজিয়ান.