ইরান “ডি-৮” (মুসলমান দেশগুলির উন্নয়নশীল অষ্টদেশের গ্রুপ) দেশগুলির যৌথ ব্যাঙ্ক গঠনের প্রস্তাব করেছে, জানিয়েছে ইরানের “মেহ্র্” সংবাদ এজেন্সি. উক্ত উদ্যোগ প্রকাশ করেন ইরানের কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কের প্রধান মাহমুদ বাহমানি অষ্টদেশের সম-পদাধিকারীদের সাথে সাক্ষাতে, যা বৃহস্পতিবার ইসলামাবাদে অনুষ্ঠিত হয় “ডি-৮” শীর্ষ সম্মেলনের কাঠামোতে. বাহমানি উল্লেখ করেন যে, এমন ব্যাঙ্কের জন্য উপকারী হবে মার্কিনী ডলার বা ইউরো ব্যবহার নয়, বরং অন্য কোনো মুদ্রা. সেই সঙ্গে ইরানের আর্থ-বিশেষজ্ঞ বিগত পাঁচ বছরে “ডি-৮” দেশগুলির মাঝে পণ্য-আবর্তনের পরিমাণ বৃদ্ধিতে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন. বাহমানি উল্লেখ করেছেন যে, বাণিজ্যের ক্ষেত্রে সীমিতকরণ ও নিষেধাজ্ঞা দূর করা উচিত, যাতে “ডি-৮” দেশগুলির মাঝে সহযোগিতা আরও প্রসারিত হয়. ইরান এ অঞ্চল ও পৃথিবীর অন্যান্য উন্নয়নশীল দেশের সাথে আর্থিক এবং বাণিজ্যিক-অর্থনৈতিক ক্ষেত্রে সহযোগিতা বিকাশ করছে. ব্যাপারটা হল এই যে, এ দেশ ইউরোসঙ্ঘ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের তরফ থেকে একতরফা কঠোর অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞায় পড়েছে তার জাতীয় পারমাণবিক কর্মসূচি বিকাশের জন্য. প্রসঙ্গত, পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে শুরু হওয়া এই “ডি-৮” গ্রুপে অন্তর্ভুক্ত বাংলাদেশ, মিশর, ইন্দোনেশিয়া, ইরান, মালয়েশিয়া, নাইজিরিয়া, পাকিস্তান এবং তুরস্ক.