আশা করা কঠিন যে, সিরিয়ার আভ্যন্তরীন বিরোধীপক্ষের অংশগ্রহণ ছাড়া সিরিয়া মীমাংসার প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ হবে, যেমন সূত্রবদ্ধ করা হয়েছে রাষ্ট্রসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদের সিদ্ধান্তে. এ সম্বন্ধে এর-রিয়াদে সাংবাদিক সম্মেলনে বলেছেন রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরোভ. মস্কো এর পক্ষে মত প্রকাশ করছে, যাতে সিরিয়ার আভ্যন্তরীন বিরোধীপক্ষকে মীমাংসার গঠনমূলক প্রক্রিয়ায় অন্তর্ভুক্ত করা যায়, সে প্রক্রিয়ায় নয়, যা গঠিত হচ্ছে সিরিয়ার কর্তৃপক্ষের সাথে সংলাপ চালাতে অস্বীকার করার ভিত্তিতে. লাভরোভ মনে করিয়ে দেন যে, সিরিয়ার আভ্যন্তরীন বিরোধীপক্ষের বেশির ভাগই দোহা সম্মেলনে অংশগ্রহণ করতে অস্বীকার করেছে. এ অস্বীকৃতি দেখা দিয়েছে সিরিয়া সঙ্ঘর্ষে বিদেশী হস্তক্ষেপের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে বাইরের বিরোধীপক্ষের সাথে মতভেদের পরে. লাভরোভ, মোটামুটিভাবে উল্লেখ করেন যে, বর্তমানে সিরিয়ার সমস্ত বিরোধীপক্ষের চূড়ান্ত ঐক্য ঘটে নি, যার আহ্বান জানাচ্ছে মস্কো. এর-রিয়াদে লাভরোভ সিরিয়ার বিরোধীপক্ষের নতুন জোট – সিরিয়ার বিপ্লবী ও বিরোধী শক্তির জাতীয় কোয়ালিশন সম্বন্ধে কয়েকটি কথা বলেন. মন্ত্রীর কথায়, গত সপ্তাহে দোহায় এ কোয়ালিশনের দ্বারা গৃহীত দলিলের সাথে রাশিয়ার বিশদে পরিচিত হওয়ার সুযোগ হয় নি, তবে তার সাথে প্রাথমিক পরিচিতি কিছু প্রশ্নের উদ্রেক করে. বিশেষ করে, কোয়ালিশন দেশের শাসন ব্যবস্থার এবং নিয়ন্ত্রণ সংস্থার উত্খাতের জন্য আপোষহীন মত প্রকাশ করছে, আর তার পরে ভাবে, এর পর কি করা হবে. লাভরোভ উল্লেখ করেন, বিশ্বের ইতিহাসে আগেও এ ধরণের স্লোগান ধ্বনিত হয়েছে এবং এ পথ বিশৃঙ্খলা এড়ানোর সুযোগ দেয় নি, বলেন মন্ত্রী. তাছাড়া, নতুন কোয়ালিশন সিরিয়ার কর্তৃপক্ষের সাথে সংলাপ চালাতে অস্বীকার করছে, আর তা সিরিয়া সম্পর্কে রাশিয়ার স্থিতির পরিপন্থী, উল্লেখ করেন লাভরোভ.