আবু জিহাদ ইজরায়েলের হাতেই নিহত হয়েছে, বলে জানিয়েছে ইজরায়েলের সংবাদ মাধ্যম. বহুদিন ধরেই ইজরায়েলকে এই হত্যাকাণ্ডের জন্য সন্দেহ করা হচ্ছিল কিন্তু সামরিক সেন্সর শুধু এই বৃহস্পতিবারেই ১৯৮৮ সালে টিউনিশিয়া দেশে করা এক গুপ্ত অন্তর্ঘাতের তথ্যের উপর থেকে “গোপনীয়তার বন্ধন” তুলে নিয়েছে. এবারে অপেক্ষা যে, “এদিয়ত আখ্রোনত” নামের ইজরায়েলের কাগজে পরে প্যালেস্তিনীয় এই নেতার হত্যাকারীদের প্রধানের সাক্ষাত্কার প্রকাশিত হবে. আবু জিহাদ, যার প্রকৃত নাম হালিল আল- ওয়াজির, প্যালেস্তিনীয় মুক্তি সংগঠনের একজন স্রষ্টা. এই সংগঠনের সামরিক অঙ্গের নেতা ছিল ও বহু ইজরায়েল বিরোধী সন্ত্রাসবাদী কাজকর্মের আয়োজক.