ইস্রাইলের দ্বারা ইরানের উপর আঘাত হানা আরব দেশগুলির স্বার্থের সাথে সুসঙ্গত. এ সম্বন্ধে ইস্রাইলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু বলেছেন ফরাসী “পারি মাচ” পত্রিকাকে প্রদত্ত ইন্টারভিউতে. নেতানিয়াহু-র স্থিরবিশ্বাস যে, “আঘাত হানার পাঁচ মিনিট পরেই, খুঁত খুঁতে লোকেদের সন্দেহ সত্ত্বেও, নিকট প্রাচ্য স্বস্তির নিশ্বাস ফেলবে”. তাঁর মতে, ইরানের “আরব জগতে জনপ্রিয়তা নেই”. প্রধানমন্ত্রী মনে করেন যে, অঞ্চলের কয়েকটি দেশের সরকার “বুঝেছে যে, পারমাণবিক অস্ত্রে সজ্জিত ইরান শুধু ইস্রাইলের জন্যই বিপজ্জনক নয়, আরবদের জন্যও”. একসারি পশ্চিমী দেশ এবং ইস্রাইল ভাবছে যে, তেহেরান পারমাণবিক বোমা পাওয়ার চেষ্টা করছে. ইস্রাইল একাধিকবার ইরানে পারমাণবিক প্রকল্পগুলিতে আগাত হানার হুমকি দিয়েছিল, যদি আন্তর্জাতিক জনসমাজ শান্তিপূর্ণ উপায়ে ইরানের পারমাণবিক সমস্যা মীমাংসা করতে সক্ষম না হয়. তেহেরান নিশ্চয়োক্তি করছে যে, তার পারমাণবিক কর্মসূচি নিছক শান্তিপূর্ণ উদ্দেশ্য সাধনের জন্য নির্দেশিত.