ইরান, সম্ভবত, শিগগিরই, নিজের দেশে সিরিয়ায় সঙ্ঘর্ষরত পক্ষগুলির প্রতিনিধিদের সাক্ষাতের ব্যবস্থা করবে. এ সম্বন্ধে জানিয়েছেন ইস্লামিক প্রজাতন্ত্রের উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেন আমীর আব্দোলাহিয়ান. সারা বছর ধরে ইরান সিরিয়ায় সঙ্ঘর্ষরত পক্ষগুলির সাথে আলাপ-আলোচনা চালাচ্ছে, সেই সঙ্গে “ভাই-মুসলমান” এবং “সিরিয়ার জাতীয় পরিষদের” সাথে, বলেন তিনি. এ প্রচেষ্টা চালানো হচ্ছে বিরোধী দলগুলি এবং সিরিয়ার সরকারের মাঝে জাতীয় সংলাপের জন্য ভিত্তি প্রস্তুত করার উদ্দেশ্যে. রাষ্ট্রসঙ্ঘ ও আরব রাষ্ট্র লীগের বিশেষ প্রতিনিধি লাখদার ব্রাহিমি আগে ইরানের কাছে অনুরোধ জানিয়েছিলেন মুসলমানদের উত্সবের সময় সিরিয়ার সরকার এবং বিরোধীপক্ষের মাঝে সাময়িক অগ্নি সংবরণ অর্জনে সহায়তা করার জন্য. সিরিয়ার বিরোধী পক্ষগুলি কথায় অগ্নি সংবরণে সম্মত হয়েছিল, কিন্তু কার্যক্ষেত্রে তা পালন করে নি.